,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

আগামী নির্বাচন কমিশনের অগ্নিপরীক্ষা: এরশাদ

নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ রিভিউজ.কম::জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেন, ‘আমরা এককভাবে নির্বাচনের প্রস্তুতি গ্রহণ করছি। আপাতত জোটে আছি। আগামীতে কি হবে, কিভাবে নির্বাচন হবে–সেই সম্পর্কে ভবিষ্যৎবাণী করা আমার পক্ষে সম্ভব নয়।

বুধবার চট্টগ্রামে হোটেল রেডিসন ব্লুু–তে গণমাধ্যম কর্মীদের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা বলেন তিনি।
ব্রিফিংকালে এরশাদের পাশে বসা নিয়ে প্রেসিডিয়াম সদস্য সোলায়মান আলম শেঠ ও কেন্দ্রীয় সহ–সভাপতি মোর্শেদ মুরাদ ইব্রাহীমের মধ্যে চেয়ার ঠেলাঠেলি হয়। মাহজাবীন মোরশেদকে ঠেলে সোলায়মান শেঠ এরশাদের পাশে বসার চেষ্টা করলে পেছন থেকে মাহজাবীনের স্বামী মোরশেদ মুরাদ ইব্রাহীম শেঠকে ঠেলে চেয়ার টেনে নিয়ে স্ত্রীকে বসার সুযোগ করে দেন। এসময় মৃদু উত্তেজনা সৃষ্টি হলে শেঠ মাহজাবীনকে বসার সুযোগ দিয়ে পাশে চলে যান।

এইচএম এরশাদ বলেন, আগামী নির্বাচনে জাপা ফ্যাক্টর হয়ে দাঁড়িয়েছে। তাই সবাই আমাদের জোটে নিতে চাই। তবে আমরা কোথায় যাব, কিভাবে নির্বাচন করব, সেটা নির্ভর করছে আমাদের ওপর। নেতা–কর্মীদের ওপর। আলোচনার মাধ্যমে আমরা সিদ্ধান্ত নেব। তবে আমার মনে হয়, আগামী নির্বাচনে জাতীয় পার্টি অনেক ভালো করবে।

জীবনের শেষ নির্বাচন উল্লেখ করে তিনি আরও বলেন, নির্বাচনে জয়ী হতে চাই আমরা। সকলের দোয়া থাকলে ইনশাল্লাহ আমরা জয়ী হবো। এজন্য সকলের দোয়া চাই।

রংপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে জয় পেয়েছেন জাপা প্রার্থী। আগামী সংসদ নির্বাচনে সেই সফলতা ধরে রাখতে পারবে কিনা সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে এরশাদ বলেন, ‘আওয়ামী লীগ আমাদের চেয়ে অনেক শক্তিশালী দল। আমরা এখন সুসংগঠিত হচ্ছি। শক্তিশালী হচ্ছি। আমাদের ৩০০ আসনে প্রার্থী রয়েছে। কতজন প্রার্থী জয়ী হতে পারবে সেই সম্পর্কে আমরা নিশ্চিত নই।

বিমানবন্দর থেকে শতাধিক গাড়ির বিশাল শোভাযাত্রার মাধ্যমে রেডিসন ব্লুতে পৌঁছেন এইচএম এরশাদ। এতে উৎফুল্ল হয়েছেন উল্লেখ করে তিনি বলেন, কর্মীদের উৎসাহ–উদ্দীপনা দেখে আমি উৎফুল্ল ও অনুপ্রাণিত হয়েছি। চট্টগ্রামের নেতাকর্মীদের অভিনন্দন জানিয়ে তিনি বলেন, প্রথমবারের মতো মনে হয়েছে, জাতীয় পার্টি জেগে ওঠেছে। নেতাকর্মীরা ঐক্যবদ্ধ ও আগামী নির্বাচনের জন্য প্রস্তুত হয়েছে।

আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনের বিষয়ে জাপা চেয়ারম্যান এরশাদ বলেন, রংপুরে নির্বাচন করে আসলাম। বলেছিলাম, এটা নির্বাচন কমিশনের জন্য অগ্নিপরীক্ষা। সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন করতে পারবে কিনা সেই পরীক্ষা। সেই পরীক্ষায় নির্বাচন কমিশন উত্তীর্ণ হয়েছেন। এখানে সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন হয়েছে। রংপুরে আদর্শ নির্বাচন হয়েছে। আমার মনে হয়, বাংলাদেশে প্রথমবারের মতো আদর্শ নির্বাচন হয়েছে।

ভবিষ্যতে বিএনপির সঙ্গে জাপা’র জোট হতে পারে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সেই বক্তব্যের বিষয়ে জানতে চাইলে এরশাদ বলেন, মির্জা ফখরুল ইসলাম কি বলেছিলেন আমার জানা নেই। আমরা আপাতত জোটে আছি। এককভাবে নির্বাচনের প্রস্তুতি নিচ্ছি।

দেশে অর্থনৈতিক অবস্থা, দেশি–বিদেশি বিনিয়োগ ও কর্মসংস্থানের বিষয়ে হোসেইন মুহম্মদ এরশাদ বলেন, ব্যাংক খালি হয়ে গেছে। দেশি–বিদেশি বিনিয়োগ নেই। কর্মসংস্থান নেই। তাই যুব সমাজ বিপদে চলে যাচ্ছে। নেশাগ্রস্ত হয়ে পড়ছে। এটা আমাদের জন্য লজ্জাজনক। তাই এই মুহূর্তে সরকারের প্রয়োজন দেশি–বিদেশি বিনিয়োগ নিয়ে আসা। নতুন নতুন শিল্প কারখানা গড়ে তোলা। শিক্ষিত যুবকদের কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করা।
জাপা চেয়ারম্যান সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মুহম্মদ এরশাদ একটি সামাজিক অনুষ্ঠানে যোগ দিতে চট্টগ্রাম আসেন। বিকেল ২টা ২০ মিনিটে বিমানযোগে হযরত শাহ আমানত আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছেন। সেখানে দলীয় নেতাকর্মীরা তাকে বরণ করেন। সেখান থেকে শতাধিক গাড়ির বহর নিয়ে হোটেল রেডিসন ব্লুতে পৌঁছে সাংবাদিকদের ব্রিফিং করেন তিনি।

এসময় উপস্থিত ছিলেন দলের প্রেসিডিয়াম সদস্য–সাংসদ জিয়াউদ্দিন আহমেদ বাবলু, সাবেক মেয়র মাহমুদুল ইসলাম চৌধুরী, প্রেসিডিয়াম সদস্য সোলায়মান আলম শেঠ, নগর জাপার সভাপতি মাহজাবীন মোর্শেদ এমপি, কেন্দ্রীয় সহ–সভাপতি মোর্শেদ মুরাদ ইব্রাহীম ও মহানগর, উত্তর–দক্ষিণ জেলার শীর্ষ নেতৃবৃন্দ।

এইচএম এরশাদ হোটেল প্রবেশ করে সাংবাদিকদের বিফ্রিং করার সময় হোটেল লবির বাইরে বিপুল নেতাকর্মী অবস্থান নেন।

মতামত...