,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

আনোয়ারার জেএসসি পাস করা কিশোরী মোহোনী ছেলেতে রূপান্তরিত

আনোয়ারা সংবাদদাতা,৪ জানুয়ারী, বিডিনিউজ রিভিউজ.কম:: আনোয়ারায় সম্প্রতি জেএসসি পাস করা ১৩ বছরের এক কিশোরী ছেলেতে রূপান্তরিত হয়েছে। উপজেলার বৈরাগ ইউনিয়নের বদলপুরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা জানাজানি হলে তাকে দেখতে বদলপুরা এলাকায় মানুষের ভিড় জমে।
জানা গেছে, উপজেলার বদলপুরা গ্রামের কাতার প্রবাসী আহমদ হোসেন সিরাজীর চার মেয়ে। তাদের মধ্যে সবার বড় মুমতাহিনা আহমদ ওরফে মিফতা এ বছর মেরিন একাডেমী স্কুল অ্যান্ড কলেজ থেকে জেএসসি পরীক্ষা দিয়ে জিপিএ ৪.৪৫ পায়। এদিকে গত ছয় মাস ধরে মুমতাহিনার শারীরিক পরিবর্তন দেখা যায়। মেয়েলি স্বভাব পরিবর্তন হয়ে তার মধ্যে ধীরে ধীরে ছেলের স্বভাব চলে আসতে শুরু করে। মুমতাহিনা বিষয়টি মাকে জানায়। তার মা বিদেশে থাকা স্বামীকে বিষয়টি অবহিত করেন। পরে স্বামীর পরামর্শে পটিয়ায় নানাবাড়ি নিয়ে চিকিৎসা শুরু করেন।
মুমতাহিনার মামা স্বাস্থ্যবিভাগে কর্মরত কামরুল ইসলাম তাকে ঢাকার বারডেম হাসপাতাল ও চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বিভিন্ন বিশেষজ্ঞ চিকিৎসকের কাছে নিয়ে যান। পরে ডাক্তারের পরামর্শে তার শরীরের বিভিন্ন পরীক্ষা করা হয়। গত বছরের ১৮ আগস্ট মুমতাহিনাকে ছেলে হিসেবে ছাড়পত্র দেয় চমেক হাসপাতালের শিশু সার্জারি বিভাগ।

বিষয়টি পুরোপুরি নিশ্চিত হলেও গত চার মাস নানাবাড়ি রেখে তার চিকিৎসা চলে। সর্র্বশেষ মুমতাহিনার শরীরে সম্পূর্ণভাবে ছেলের রূপ এলে গত সোমবার তার চুল ছোট করা হয়। সেলোয়ার কামিজের পরিবর্তে তাকে শার্ট-প্যান্ট পরানো হয়। মঙ্গলবার সকালে পটিয়ার নানাবাড়ি থেকে বদলপুরা গ্রামে এনে পারিবারিকভাবে এলাকাবাসীকে বিষয়টি জানানো হয়। তাকে দেখতে এলাকার লোকজন ভিড় করে। এসময় আনোয়ারার মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মরিয়ম বেগমও উপস্থিত হন।
মুমতাহিনা জানায়, ছয় মাস আগে বিষয়টি টের পেয়ে তার মনে ভয় জাগে। পুরো ঘটনা সে মাকে জানায়। তার স্বপ্ন, ভবিষ্যতে সে ডাক্তার হবে।
বড় মেয়ে ছেলেতে রূপান্তরিত হওয়ায় আল্লাহর কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন মুমতাহিনার পিতা আহমদ হোসেন সিরাজী। ছেলের নাম আবদুল্লাহ আল মঈন রাখা হয়েছে বলে জানান তিনি।

মতামত...