,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

উত্তর বঙ্গের ট্রাক ড্রাইভারদের মামলা ভীতি! চট্টগ্রামে নিত্য পণ্যের দাম বৃদ্ধি

aকামরুল ইসলাম দুলু, সীতাকুন্ড সংবাদদাতা, বিডিনিউজ রিভিউজঃ উত্তর বঙ্গের মালবাহী ট্রাক ড্রাইভারদের মামলা ভীতির কারনে তারা চট্টগ্রামে পণ্য পরিবহনে অনিহা প্রকাশ করছে, এর ফলে, চট্টগ্রামে নিত্য পণ্যের দাম বৃদ্ধি পাচ্ছে।

সীতাকুণ্ডে এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশনে দেল ২৫ আগস্ট রাতে ভারি যানবাহনের ড্রাইভার ও হেলপার কর্তৃক হামলা ও আগুন ধরিয়ে দেওয়ার ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় পুলিশ অজ্ঞাত ৩-৪শ জন ড্রাইভার এবং হেলপারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে সীতাকুন্ড মডেল থানায়। মামলা দায়েরের পর থেকে উত্তরবঙ্গ থেকে ছেড়ে আসা চাউল,সবজিসহ বিভিন্ন মালামাল ভর্তি ট্রাক ড্রাইভারদের পুলিশ ব্যাপকভাবে হয়রানি  করছে বলে অভিযোগ করে তারা চট্টগ্রামে পন্য পরিবহনে অনিহা প্রকাশ অনেক ড্রাইভার। ড্রাইভাররা জানান,অতিরিক্ত মালামাল বহন ছাড়াও পুলিশ অনেক গাড়িকে মামলা দিয়ে হয়রানি করছে।

জানা গেছে, সীতাকুণ্ডে এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশনে হামলা ও আগুন ধরিয়ে দেওয়ার ঘটনার পর থেকে উত্তরবঙ্গ চট্টগ্রামে আসা চাউল ভর্তি ট্রাক অনেকাংশে কমে গেছে বলে অভিযোগ করছেন চট্টগ্রামের চাউল ব্যবসায়ীরা। তারা জানান ঐ ঘটনার পর থেকে মামলা দায়ের এবং গ্রেফতার অতংন্কে অনেক ড্রাইভার চট্টগ্রামে আসতে চাইছে না। যার ফলে চট্টগ্রামে ব্যবসা বানিজ্য সমস্যার সৃষ্টি হচ্ছে। এদিকে ড্রাইভারদের অভিযোগ প্রসংগে জানতে চাইলে সীতাকুন্ড মডেল থানার ডিউটি অফিসার নুরে আলম মুটো ফোনে এ বিডিনিউজ রিভিউজকে জানান,গত ২৫ আগষ্টের ঘটনায় অজ্ঞাত ৩০০/৪০০ জন ভারি যানবাহনের ড্রাইভার ও হেলপারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের হয়েছে। ড্রাইভারদের হয়রানি প্রসংগে তিনি বলেন, কাউকে কোন প্রকার হয়রানি করা হচ্ছে না এবং শুধুমাত্র ওভার লোডিং যারা করছে তাদের বিরুদ্ধেই জরিমানা করা হচ্ছে। মামলা দায়ের হলেও এখনো পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করা হয়নি।

উল্লেখ্য যে,গত ২৫ আগষ্ট মঙ্গলবার দিবাগত রাত ৩টার দিকে উপজেলাধীন বড় দারোগারহাট দুটি এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশনে ভারি যানবাহনের ড্রাইভাররা এক্সেল লোড কন্টোল স্টেশনে হামলা চালিয়ে ভাংচুর করে এবং আগুন ধরিয়ে দেয়। এতে এক্সেল অফিসের ছয় কর্মকর্তা গুরুতর আহত হয়। মহাসড়কে যানবাহনের ওভারলোডিং বন্ধ করে দুর্ঘটনা কমানো ও মহাসড়ককে স্থায়িত্ব বৃদ্ধির লক্ষ্যে সীতাকুণ্ড বড় দারোগাহাটে ১০ কোটি টাকা ব্যয়ে এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশন নির্মাণের করা হয়।অতিরিক্ত মালামাল বোঝাইয়ের কারণে এখানে প্রতিদিনই ভারি যানবাহনের জরিমানা করা হয়। গত মঙ্গলবার দিবাগত রাত তিনটার দিকে চট্টগ্রাম থেকে ছেড়ে আসা ৫০-৬০টি ভারি যানবাহন উপজেলাধীন বড় দারোগারহাট এক্সেল লোড কন্ট্রোল স্টেশনের সামনে আসলে এক্সেল কর্মকর্তারা ভারি যানবাহনগুলো পরিমাপ করে। এতে অতিরিক্ত মাল লোড করায় জরিমানা করা হলে ড্রাইভাররা তাদের উপর হামলা করে ও ভাঙচুর অগ্নিসংযোগ করে। তাৎক্ষণিকভাবে সীতাকুণ্ড ফায়ার সার্ভিস এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এসময় আহত হয় সিগন্যাল ম্যান কামাল উদ্দিন, ওভার লোড কন্ট্রোলার তায়েব, মিজান, সিগন্যাল ম্যান বাবলু। সিগন্যাল ম্যান জাহিদ ও শুভ গুরুতর আহত হয়। উক্ত ঘটনার পরিপেক্ষিতে অজ্ঞাত ৩০০/৪০০ জনের বিরুদ্ধে সীতাকুন্ড মডেল থানায় মামলা হয়।

মতামত...