,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চকরিয়ায় চলতি মৌসুমে পুরোদমে বোরো চাষ শুরু

BOROচকরিয়া সংবাদ দাতা, বিডি নিউজ রিভিউজ দতকমঃ  চকরিয়ায়  চলতি মৌসুমে পুরোদমে শুরু হয়েছে বোরো চাষাবাদ। কৃষিবিভাগ উপজেলার ঘোটা এলাকায় ৪৬ হাজার ৯৭৫ একর জমিতে চাষের লক্ষমাত্রা নির্ধারণ করেছে । তবে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে চাষের লক্ষমাত্রা অতিক্রম করে আরো অতিরিক্ত জমিতে চাষের আশা করছেন কৃষি কর্মকর্তারা। ইতোমধ্যে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় প্রায় ২৫ হাজার একর জমিতে বোরো চারা রোপণ শেষ হয়েছে। চলতি মাসে অবশিষ্ট পরিমাণ জমিতে চাষাবাদ নিশ্চিত হবে, এমনটা জানিয়েছেন কৃষি কর্মকর্তারা।
উপজেলা কৃষি বর্গাচাষি সমিতির সভাপতি মো. মহিউদ্দিন পুতু জানিয়েছেন, গত বছরে কয়েকদফা বন্যার পর কৃষিখাতে ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতি হলেও পলি জমে বেশির ভাগ এলাকার জমিতে উর্বরাশক্তি বেড়েছে। এ কারণে এবছর জমিতে বোরো চাষে ভাল ফলনের সম্ভাবনা রয়েছে। তিনি বলেন, চাষাবাদ নির্বিঘ্ন করতে হলে কৃষকের মাঝে সঠিক সময়ে সার ও সেচের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে হবে।
উপজেলা কৃষি বিভাগের উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা মো. মহিউদ্দিন বলেন, প্রতি বছরের মতো চলতি মৌসুমেও কৃষি কর্মকর্তাদের দিকনির্দেশনায় গুটি ইউরিয়া ও এলসিসি পদ্ধতি অনুসরণ করে কৃষকেরা বোরো চাষ শুরু করেছেন। এই পদ্ধতির চাষে কৃষকেরা লাভবান হচ্ছেন। ইতোমধ্যে গত জানুয়ারি মাস থেকে চাষের শুরুতে কৃষি বিভাগের মাঠ পর্যায়ে কর্মরত উপসহকারী কৃষি কর্মকর্তারা বোরো রোপণ তদারক করছেন।
জানতে চাইলে উপজেলা কৃষি বিভাগের উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা (নিরীক্ষা) যোগেশ চন্দ্র দাশ বলেন, চলতি মৌসুমে উপজেলায় ৪৬ হাজার ৯৭৫ একর (১৮ হাজার ৭৯০ হেক্টর) জমিতে বোরো চাষের লক্ষমাত্রা নির্ধারন করা হয়েছে। তার মধ্যে ১৩ হাজার ৬২০ একর জমিতে উফশী জাতের, ৫ হাজার ৫০ একর জমিতে হাইব্রিড জাতের ও ১২০ একর জমিতে স’ানীয় জাতের ধান চাষ করা হচ্ছে।
চকরিয়া উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মো. আতিক উল্লাহ বলেন, নতুন বছরের শুরুতে চলতি মৌসুমের বোরো চাষ শুরু হয়েছে উপজেলার বিভিন্ন এলাকায়। ইতোমধ্যে উপজেলার লক্ষ্যারচর, কাকারা, ফাসিয়াখালী, কৈয়ারবিল, সুরাজপুর-মানিকপুর, বমু বিলছড়ি, হারবাং, বরইতলী, সাহারবিল, পুর্ববড় ভেওলা, বদরখালী, খুটাখালী, ডুলাহাজারা, ঢেমুশিয়া, কোণাখালী, পশ্চিম বড় ভেওলা, বিএমচর, চিরিঙ্গা ও পৌরসভার নয়টি ওয়ার্ডে প্রায় ৪৭ হাজার জমিতে বোরো চাষের লক্ষমাত্রা নির্ধারণ করা হয়েছে। তিনি বলেন, ইতোমধ্যে গত দেড় মাসে প্রায় ২৫ হাজার একর জমিতে বোরো রোপণ শেষ হয়েছে। তবে নির্ধারিত সময়ের মধ্যে অবশিষ্ট জমিতে বোরো চাষ নিশ্চিত হয়ে যাবে। তার দাবি, অন্য বছরের মতো এবারও চাষের পরিমাণ বাড়তে পারে।

 

বি এন আর/ ১৬০২১২/০০০৪৭/পি

মতামত...