,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চকরিয়ায় মৎস্য প্রকল্পের পুকুরে বিষ ঢেলেঅর্ধ কোটি টাকার মাছ নিধন

চকরিয়া সংবাদদাতা, ১জুলাই, বিডিনিউজ রিভিউজ.কম::চকরিয়ায় ঈদের ছুটিতে রাতের আঁধারে একটি মিঠাপানি মৎস্য প্রকল্পে ঢুকে তাণ্ডব চালিয়েছে দুর্বৃত্তরা। ওইসময় দুর্বৃত্তরা মৎস্য প্রকল্পের পুকুরে বিষ ঢেলে দিয়ে প্রায় ৫০ লাখ টাকার মাছ নিধন করেছে বলে অভিযোগ করেছেন ক্ষতিগ্রস্ত মৎস্য প্রকল্পটির মালিক উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের কোরালখালী গ্রামের বাসিন্দা নবী হোসেন।

বৃহস্পতিবার রাতের যে কোনো সময় উপজেলার পশ্চিম বড়ভেওলা ইউনিয়নের ইলিশিয়া এলাকার ইজারা নেয়া মিঠাপানির মৎস্য প্রকল্পে এ ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে শুক্রবার সকালে মৎস্য প্রকল্পের মালিক ও কর্মচারীরা সেখানে পৌঁছে পুকুর থেকে মরা মাছ গুলো উদ্ধার করেন। মৎস্য প্রকল্পটির মালিক উপজেলার সাহারবিল ইউনিয়নের কোরালখালী গ্রামের বাসিন্দা নবী হোসেন বলেন, ১ বছর আগে তিনি উপজেলার পশ্চিম বড়ভেওলা ইউনিয়নের ইলিশিয়া এলাকার নুরুল বশর চৌধুরী বাচ্ছু মিয়ার কাছ থেকে জায়গা ইজারা নেন। পরে তিনি সেখানে একটি পদ্ধতি ও চারটি নার্সারিসহ ৫টি পুকুর খনন করেন।

নবী হোসেন বলেন, মৎস্য চাষের শুরুতে প্রায় ২৫ লাখ টাকা খরচ করে মাছের পোনা দেন এবং মৎস্য প্রকল্পের অবকাঠামোগত উন্নয়ন করেন। ইতোমধ্যে আরো ৬০ লাখ টাকা খরচ করে তিনি মাছের খাদ্য দেন। প্রায় আড়াই মাসের ব্যবধানে মৎস্য প্রকল্পের পুকুরে মাছগুলো বেশ বড় হয়েছে। আগামী মাসে এসব মাছ বিক্রির সিদ্বান্ত নিয়েছিলেন।

ক্ষতিগ্রস্ত মৎস্য প্রকল্প মালিক নবী হোসেন দাবি করেন, এলাকার কতিপয় একটি মহল কিছুদিন ধরে তার বিরুদ্ধে নানা ধরনের চক্রান্ত চালাতে শুরু করে। তারা ইতোমধ্যে কয়েকটি ঘটনায় পরিকল্পিতভাবে তাকে জড়িয়ে দিয়ে মামলার আসামি করার চেষ্টা করে ব্যর্থ হন। এরই জের ধরে বৃহস্পতিবার রাতে দুর্বৃত্তরা তার মৎস্য প্রকল্পের পুকুরে বিষ ঢেলে দেয়।এতে তার প্রায় ৫০ থেকে ৫৫ লাখ টাকার মাছ মরে গেছে ।

 চকরিয়া থানার ওসি (তদন্ত) মো.মিজানুর রহমান বলেন, ঘটনাটি শুনেছি। লিখিত অভিযোগ প্রাপ্তি সাপেক্ষে এ ব্যাপারে মামলা নেয়া হবে।

মতামত...