,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চট্টগ্রামে অর্ধশত কোটি টাকা হাতিয়ে বিহারী ৩ ভাই উধাও

aস্টাফ রিপোর্টার, বিডিনিউজ রিভিউজঃ চট্টগ্রামে প্রতারণার মাধ্যমে নগরীর বিভিন্ন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে প্রায় অর্ধশত কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত বিহারী তিন ভাই উধাও হয়ে গেছে।

উধাও হয়ে যাওয়া তিন সহোদর হলো চট্টগ্রাম নগরীর বিখ্যাত ইকবাল সুইটস নামের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসা প্রতিষ্ঠানের মালিক মাজহার ইকবাল খান (৪৫), ডা. কায়সার ইকবাল খান (৪০) ও জাফর ইকবাল খান (৩৬)।

এই তিন ভাইয়ের বিরুদ্ধে চট্টগ্রাম আদালত ও থানায় একাধিক মামলা ও গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হলেও পুলিশ তাদের গ্রেপ্তার করতে পারেনি। তিন ভাইয়ের মালিকানার ইকবাল সুইটস প্রতিষ্ঠানটিও এখন তালাবদ্ধ রয়েছে।

চট্টগ্রাম নগরীর সিরাজদৌল্লা সড়কের দেওয়ান বাজার এলাকার পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত ইকবাল খানের তিন ছেলে স্বাধীনতার পর থেকেই ইকবাল সুইটসসহ বিভিন্ন ব্যবসা পরিচালনা করে আসছিল।

তিন ভাইয়ের প্রতারণার শিকার চট্টগ্রামের প্রতিষ্ঠিত ব্যবসায়ী নগরীর চকবাজার এলাকার বাসিন্দা আবু আহমেদ জানান, পাকিস্তানি বংশোদ্ভূত তিন ভাই ইকবাল সুইটসসহ আবাসন ব্যবসার সঙ্গে সম্পৃক্ত ছিল। তাদের এই ব্যবসা দেখিয়ে চট্টগ্রামের বিভিন্ন ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে নানা প্রতারণার মাধ্যমে কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে এখন উধাও হয়ে গেছে।

আবু আহমেদ বলেন, বিহারী এই তিন ভাই আমাকে দুটি ফ্ল্যাট দিবে বলে একাধিক চেকের বিপরীতে আমার কাছ থেকে প্রায় ৩৮ লাখ টাকা গ্রহণ করেন। কিন্তু আমাকে যে ফ্ল্যাট দেওয়ার কথা সেই একই ফ্ল্যাট অন্য একটি আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কাছে বন্ধক রেখে কোটি টাকা ঋণ নিয়ে এখন পলাতক রয়েছে। আমার কাছ থেকে টাকা নিয়ে ফ্ল্যাট না দেওয়ায় আমি এ ব্যাপারে আদালতে তিন ভাইয়ের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করি। আদালত থেকে ওই মামলায় তিন ভাইয়ের বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। কিন্তু পুলিশ এখনো এই তিন ভাইকে গ্রেপ্তার করতে পারেনি।

অভিযোগে জানা গেছে, ব্যবসায়ী আবু আহমেদ ছাড়াও চট্টগ্রাম মহানগরীর প্রায় ২০ জন ব্যবসায়ী ও আর্থিক প্রতিষ্ঠানের কাছ থেকে ওই তিন ভাই নানা প্রতারণার মাধ্যমে প্রায় অর্ধশত কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে এখন লাপাত্তা। চট্টগ্রামে আর্থিক বিনিয়োগকারী প্রতিষ্ঠান লংকাবাংলা ফাইন্যান্স কোম্পানি থেকে প্রায় তিন কোটি টাকা ঋণ নিয়ে তা পরিশোধ না করায় উক্ত আর্থিক কোম্পানিটি তিন ভাইয়ের মালিকানাধীন ইকবাল টাওয়ার নামের একটি ভবন দখলে নিয়েছে। কিন্তু একই ভবন আরও একাধিক ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানের নিকট বন্ধক ও বিক্রি করে কোটি টাকা হাতিয়ে নিলেও প্রতারক তিন ভাইয়ের হদিস পাচ্ছেন না ব্যবসায়ীরা। ইকবাল টাওয়ারে বাসায় পরিবারের সদস্যদের নিয়ে ওই তিন ভাই থাকতেন।

চট্টগ্রামের ইকবাল সুইটসের মালিক তিন ভাইয়ের আর্থিক প্রতারণার শিকার হয়ে ক্ষতিগ্রস্ত ব্যবসায়ীরা এখন তাদের টাকা ফেরত পেতে থানা, আদালত ও বিভিন্ন প্রশাসনের দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন।

 তিন ভাইয়ের ব্যবহৃত একাধিক মোবাইল নম্বরে ফোন করে সবগুলো নম্বর বন্ধ পাওয়া যায়।

চকবাজার থানারওসি নুরুল হুদা জানান, ইকবাল সুইটসের মালিক তিন ভাইয়ের বিরুদ্ধে আদালত থেকে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা জারি হয়েছে। ইকবাল টাওয়ারের ঠিকানায় গিয়ে তাদের পাওয়া যায়নি। তাই তাদের গ্রেপ্তার করা যায়নি। তাদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে।

মতামত...