,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চট্টগ্রামে দুর্গাপুজা ও ইংল্যান্ড সিরিজ সামনে রেখে সিএমপির নিশ্ছিদ্র নিরাপত্তা বলয়

cmp com - de comনিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ রিভিউজঃ আসন্ন পবিত্র আশুরা,হিন্দু ধর্মের বড় উৎসব শারদীয় দুর্গাপুজা ও চট্টগ্রামে অনুষ্ঠেয় ইংল্যান্ড সিরিজের খেলাকে সামনে রেখে চট্টগ্রাম মহানগর পুলিশের (সিএমপি)পক্ষ থেকে বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা করা হচ্ছে বলে জানিয়েছেন সিএমপি কমিশনার ইকবাল বাহার।

বৃহস্পতিবার৬ অক্টোবর সিএমপি কার্যালয়ে শারদীয় দুর্গোৎসব,বাংলাদেশ- ইংল্যান্ড ক্রিকেট ম্যাচ ও পবিত্র আশুরার নিরাপত্তা নিয়ে সাংবাদিকদের সাথে এক মতবিনিময়কালে তিনি এ কথা বলেন।

মতবিনিময় কালে সিএমপি কমিশনার ইকবাল বাহার বলেন,নগরীতে ২৩১ টি পূজামন্ডপ এর মধ্যে ১০৫টি অধিক গুরুত্বপুর্ণ বলে চিহ্নিত করা হয়েছে। তার মধ্যে ৬টিকে সবচে বেশী গুরুত্বপুর্ণ বলে জানান তিনি। ১০০টি গুরুত্বপূর্ণ ও সাধারণ আছে ২৬টি পুজা মন্ডপ।

সাদা পোষাকে পুলিশ ও আনসার সমন্বয়ে নজরদারী থাকবে। স্পেশাল টিম, মোবাইল টিম,পিকেট টিম থাকবে।প্রতিমা বিসর্জনের দিন পর্যাপ্ত পুলিশী নিরাপত্তা থাকবে।পুজামন্ডপগুলোতে জেনারেটরের ব্যবস্থা করা হয়েছে।নারী ও পুরুষদের প্রবেেেশর জন্য আলাদা গেটের ব্যবস্থা করা হবে। বড় বড় পুজা মন্ডপে সিসি ক্যামেরা ও স্বেচ্ছাসেবক থাকবে।আযানের সময় সাময়িকভাবে পুজা মন্ডপের মাইক বন্ধ থাকবে।নির্ধারিত সময় রাত ৮ টার আগে প্রতিমা বিসর্জন করা হবে বলেও জানান তিনি।

সিএমপি কমিশনার বাংলাদেশ ও ইংল্যান্ড দলের চট্টগ্রামের ক্রিকেট খেলার নিরাপত্তা নিয়ে বলেন,ইংল্যান্ড দল আইনশৃংঙ্খলা বাহিনীর উপর সন্তুুষ্ট হয়ে চট্টগ্রামে আসছে খেলতে।তারা ১০ অক্টোবর চট্টগ্রাম সফর করবেন। ১২ অক্টোবর বাংলাদেশ-ইংল্যান্ড তৃতীয় ওয়ান ডে,১৪-১৫ ও ১৭-১৮ অক্টোবর ওয়ার্মআপ ম্যাচ খেলবে এবং ২০ থেকে ২৪ অক্টোবর প্রথম টেস্ট ম্যাচ খেলবে।

‘৬টি সেক্টরে নিরাপত্তা:এস্কর্ট ডিউটি,সামনে-পিছনে ও পাশে পুলিশ থাকবে।পিছনে র‌্যাবের গাড়ি থাকবে।পুলিশ বিমানবন্দর,হোটেলে আসার পথে ও হোটেলে অবস্থান করার সময় নিরাপত্তা দেবে।এছাড়া জহুর আহম্মদ চৌধুরী স্টেডিয়াম ও এম এ আজিজ স্টেডিয়ামে কেন্দ্রিক পুলিশী নিরাপত্তা থাকবে।

খেলায় বিশেষ নিরাপত্তা ব্যবস্থা হিসেবে সোয়াট টিম,বোমা নিস্ক্রিয়করন দল,কুইক রেসপন্স টিম,স্ট্রাইকিং রিজার্ভ,ডিবি,র‌্যাব,ফায়ার সার্ভিস,সাদা পোষাকে পুলিশ ফোর্স ও সিআইডির ফরেনসিক টিম থাকবে।

কোন দর্শক ব্যাগ,ব্যাকপ্যাক,বোতল,টিফিন বক্স ও চুরি,ধারালো অস্ত্র,লাঠি বিহীন জাতীয় পতাকা ও কোন ধরনের ইলেকট্রিক ডিভাইস নিয়ে প্রবেশ করতে পারবে না।

পবিত্র আশুরা নিয়ে সিএমপি কমিশনার বলেন,১২ অক্টোবর পবিত্র আশুরা।নগরীতে ৯টি তাজিয়া মিছিল করা হবে। সদরঘাটে সকাল ৯টা থেকে ১২ টার পর্যন্ত একটি। বাকিগুলো বিকালে শুরু করে সন্ধ্যা সাড়ে ৫টার মধ্যে শেষ করবে। বাকলিয়া,সদরঘাট,পাচঁলাইশ,খুলশী,বায়েজীদ বোস্তামী,আকবর শাহ ও হালিশহর থেকে তাজিয়া মিছিল ও র‌্যালি বের হবে।

তিনি আরো বলেন,পুলিশের পক্ষ থেকে পিকেট,মিছিলের সামনে পিছনে ও মধ্যখানে ফোর্স থাকবে। সাদা পোষাকে মিছিলের মাঝখানে পুলিশী ফোর্স থাকবে। কাউকে সন্দেহ হলে পুলিশকে জানানোর জন্য অনুরোধ করেন তিনি।

মতামত...