,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চট্টগ্রামে পুকুরে ডুবে দুই বোনেসহ ৩ শিশুর মৃত্যু

aফটিকছড়ি সংবাদদাতা, বিডিনিউজ রিভিউজঃ  চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি ও বোয়ালখালী উপজেলায় পুকুরে ডুবে দুই বোনসহ ৩ শিশুর মৃত্যু হয়েছে। সোমবার সন্ধ্যায় এবং দুপুরে পৃথক ঘটনা দুটি ঘটেছে।

ফটিকছড়ির উপজেলার ভুজপুর থানাধীন পূর্ব রতনপুর গ্রামের কবির আহমদের দুই শিশু কন্যা আসমা (১১) ও তানজিলা (৯)। এবং বোয়ালখালি উপজেলার পশ্চিম গোমদন্ডী গ্রামের আলাউদ্দিন সরকারের বাড়ির প্রবাসী রাশেদের শিশু পুত্র খোরশেদ আলম (৩)।

স্থানীয় জন প্রতিনিধি এবং বাসিন্দা জানান, ভুজপুর থানার পূর্ব রতনপুর গ্রামের পান ব্যবসায়ী কবির আহমদের দুই শিশু কন্যা (আসমা ও তানজিলা) দুপুরে স্কুল থেকে ফিরে বাড়ি পাশে ছোট ডোবায় গোসল করতে নামে। এক পর্যায়ে দুই শিশু উক্ত ডোবায় গভীর পানিতে ডুবে যায়। কিছুক্ষন পর বাড়ীর লোকজন তাদেরকে খুঁজতে গিয়ে পুকুরে ভাসমান অবস্থায় মরদেহ দুটি দেখতে পায়। এবং মরদেহ দুটি উদ্ধার করার পর স্থানীয় চিকিৎসক পলাশ পরীক্ষা করে দেখেন দুজনের আগেই মৃত হয়েছে।

স্থানীয় বাসিন্দা আবদুল জব্বার জানান, জানাগেছে ঘটনার সময় দুই শিশুর মা প্রাথমিক শিক্ষার উপবৃত্তির টাকা আনার জন্য শান্তিরহাট গিয়েছিল।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান মো. জানে আলম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। নিহত আসমা আকতার স্থানীয় খাদিজাতুল কোবরা মহিলা একাডেমির ৫ম শ্রেনীতে এবং তানজিলা খোন্দকার পাড়া নুরানী মাদ্রাসার ৩য় শ্রেনীতে পড়ালেখা করতো বলে জানা গেছে। এ ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।

এদিকে সোমবার ১৮জুলাই সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে বোয়ালখালী উপজেলার পশ্চিম গোমদন্ডী গ্রামে পুকুরের পানিতে ডুবে খোরশেদ আলম (৩) নামের অপর এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। নিহত খোরশেদ আলম প্রবাসী রাশেদের ছেলে।

বোয়ালখালির উপ-সহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার মো. বাবর জানান, সোমবার সন্ধ্যা ৬.৫০ এর সময় খোরশেদকে হাসপাতালে নিয়ে আসা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। তিনি স্বজনদের বরাত দিয়ে জানান, খোরশেদ সন্ধ্যায় বাড়ির সামনে খেলতে খেলতে পুকুরে পড়ে গিয়েছিল।

মতামত...