,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

চট্টগ্রাম মহানগর আ.লীগের মাহতাব চৌধুরীর বাড়িতে নেতাকর্মীদের ভিড়ে মুখর

নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ রিভিউজ.কম::চট্টগ্রাম মহানগরীর ওয়াসা কার্যালয় সংলগ্ন পল্টন রোডের বাড়িটি আওয়ামী লীগ নেতাকর্মীদের পদচারণায় মুখর।  সোমবার সকাল থেকে নেতাকর্মীরা ফুল নিয়ে হাজির হয়েছেন নগর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দীন চৌধুরীকে শুভেচ্ছা জানাতে। নগর, থানা এবং ওয়ার্ড পর্যায়ের অনেক নেতা তাকে শুভেচ্ছা জানাতে সেখানে যান। বিকালে প্রয়াত নগর আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ এবিএম মহিউদ্দীন চৌধুরীর শোকসভায় নেতাকর্মীদের উপস্থিতিতে পল্টন রোডের বড় একটি অংশ ভরে যায়।

চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দীন চৌধুরী বলেন, আমি এখনো সংগঠন থেকে কোনো চিঠি পায়নি। তবে শুনেছি আমাকে ভারপ্রাপ্ত সভাপতির দায়িত্ব দেয়া হয়েছে। এই দায়িত্ব দিয়ে নেত্রী আমাদের পরিবারকে সম্মানিত করেছেন। তিনি সবসময় আমাদের খোঁজ–খবর রাখতেন। যে দায়িত্ব পেয়েছেন তা সর্বশক্তি এবং আন্তরিকতা দিয়ে পালন করবেন উল্লেখ করে বলেন, সবাইকে নিয়ে ঐক্যবদ্ধ ভাবে কাজ করবো। ঐক্যের কোনো বিকল্প নেই। দলের মধ্যে কোন ভেদাভেদ থাকবে না। ঐক্যবদ্ধ থেকে আগামি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে নৌকার বিজয় ছিনিয়ে আনবো।

মাহতাব চৌধুরী বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ঠ সহচর প্রয়াত জহুর আহমদ চৌধুরীর মেজ ছেলে। মুক্তিযুদ্ধের অন্যতম সংগঠক জহুর আহমদ চৌধুরীর পরিবারের সঙ্গে বঙ্গবন্ধু পরিবারের সখ্যতা দীর্ঘদিনের। গত রবিবার দুপুরে নৌবাহিনীর বার্ষিক কুচকাওয়াজশেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জহুর আহমদ চৌধুরীর তৃতীয় ছেলে হেলাল উদ্দিন চৌধুরী তুফানকে বলেন, ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হিসেবে মাহতাব দায়িত্ব পালন করবে। যতদিন নতুন কমিটি বা সম্মেলন না হবে, ততদিন মাহতাব ভাই সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন। নেত্রী বলেছেন, ‘মাহতাব ভাইকে বলবে সবাইকে নিয়ে মিলেমিশে যাতে কাজ করে।

এই খবর শোনার পর থেকে উৎসুক নেতাকর্মীরা ফুল নিয়ে শুভেচ্ছা জানাতে ছুটে যান মাহতাব উদ্দীন চৌধুরীর বাড়িতে।

প্রয়াত সভাপতি এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরীর বড় ছেলে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেন, সাংগঠনিকভাবে সাধারণত সভাপতির অনুপস্থিতিতে প্রথম সহ–সভাপতিই দায়িত্ব পান। নেত্রী নির্দেশ দিয়ে গেছেন। সবার শ্রদ্ধেয় মাহতাব উদ্দিন চৌধুরীই এখন সভাপতি হিসেবে দায়িত্ব পালন করবেন।

উল্লেখ্য, ২০১৩ সালের ১৪ নভেম্বর নগর আওয়ামীলীগের তিন বছর মেয়াদী বর্তমান কমিটি ঘোষণা করা হয়। আগের কমিটির সভাপতি মহিউদ্দিন চৌধুরীকে নেতৃত্বে রেখে সাধারণ সম্পাদক করা হয় আ জ ম নাছির উদ্দিনকে। ১৫ ডিসেম্বর নগর আওয়ামীলীগের সভাপতির পদটি শূন্য হয়।

মতামত...