,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে ১২৩ কিলোমিটারব্যাপী মানববন্ধন লালমনিরহাটে

aলালমনিরহাট সংবাদদাতা ,বিডিনিউজ রিভিউজঃসদর উপজেলার তিস্তা সড়ক সেতু থেকে পাটগ্রামের বুড়িমারী স্থলবন্দর জিরোপয়েন্ট পর্যন্ত এ মানববন্ধনের আয়োজন করে আওয়ামী লীগ নেতৃত্বাধীন ১৪ দলীয় জোট।

শনিবার ২৩ জুলাই সকাল ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত স্থায়ী এ মানববন্ধনে আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ছাত্রলীগ, যুব মহিলা লীগ, কৃষক লীগ, শ্রমিক লীগ ও জাসদের নেতাকর্মী সমর্থক ছাড়াও মুক্তিযোদ্ধা, সাংবাদিক, সুশীল সমাজ, শিক্ষক, শিক্ষার্থী, ব্যবসায়ীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ অংশগ্রহণ করেন।

লালমনিরহাট সদর উপজেলার তিস্তা বাসস্ট্যান্ডে জেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক ও গোকুন্ডা ইউপি চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা স্বপন, জেলা শহরের প্রাণকেন্দ্র মিশনমোড় চত্বরে জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও জেলা পরিষদ প্রশাসক অ্যাডভোকেট মতিয়ার রহমানের নেতৃত্বে ১৪ দলের নেতাকর্মী এবং হাতীবান্ধার মিলনবাজার থেকে পাটগ্রামের বুড়িমারী স্থলবন্দর জিরোপয়েন্ট পর্যন্ত জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি, প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংসদীয় স্থায়ী কমিটির সভাপতি মোতাহার হোসেন এমপির নেতৃত্বে বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ গুঁড়ি গুঁড়ি বৃষ্টি উপেক্ষা করে লালমনিরহাট-পাটগ্রাম-বুড়িমারী জাতীয় মহাসড়কের বিভিন্ন পয়েন্টে মানববন্ধনে অংশ নেন।

লালমনিরহাট জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি মোতাহার হোসেন এমপি ও জেলা পরিষদ প্রশাসক অ্যাডভোকেট মতিয়ার রহমান মানববন্ধনে প্রশাসন ও দলীয় নেতাকর্মীসহ সবার উদ্দেশে বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় অসাম্প্রদায়িক ও জঙ্গিবাদমুক্ত বাংলাদেশ গড়তে দলমত নির্বিশেষে মুক্তিযুদ্ধের সপক্ষে সবাইকে ঐক্যবদ্ধভাবে এ সমস্যার মোকাবেলা করতে হবে। আমরা ’৫২-এর ভাষা আন্দোলনে এবং ’৭১-এর মহান মুক্তিযুদ্ধে যেভাবে বিজয় লাভ করেছি, জঙ্গিবাদবিরোধী আন্দোলনেও সেভাবেই বিজয় নিশ্চিত করব। কারণ মুক্তিযুদ্ধে বিজয়ী জাতি জঙ্গিবাদের কাছে হারবে না, হারতে দেওয়া যাবে না।’

জেলা শহরের মিশনমোড় চত্বরে অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন ক্যাপ্টেন (অব.) আজিজুল হক বীরপ্রতীক, জাসদের সভাপতি খোরশেদ আলম, বিশিষ্ট মুক্তিযোদ্ধা সাংবাদিক শফিকুল ইসলাম, লালমনিরহাট প্রেসক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আহমেদুর রহমান মুকুল, জেলা আইনজীবী সমিতির সাধারণ সম্পাদক ময়েজুল ইসলাম, মহিলা আওয়ামী লীগ নেত্রী মেহেরুন নাহার, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আশরাফ হোসেন, কবি আবদুর রব সুজন ও জেলা আওয়ামী যুবলীগের সভাপতি মোড়ল হুমায়ুন কবীর প্রমুখ।

লালমনিরহাট সরকারি কলেজবাজার এলাকা থেকে আদিতমারীর সাপ্টিবাড়ী খাতাপাড়া মাজার এলাকায় জেলা আওয়ামী লীগের কার্যকরী কমিটির সদস্য সাবেক ছাত্রনেতা এরশাদ হোসেন জাহাঙ্গীর, আদিতমারী গ্রামীণ ব্যাংক থেকে রেলস্টেশন বাজার এলাকায় আদিতমারী উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারণ মাইদুল ইসলাম, কালীগঞ্জের কাকিনা বাসস্ট্যান্ড থেকে ভোটমারীর চৌধুরির মোড় পর্যন্ত কালীগঞ্জ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মাহবুবুজ্জামান আহমেদ এবং হাতীবান্ধা উপজেলার ডাউয়াবাড়ী বাজার এলাকায় অ্যাডভোকেট মশিউর রহমান, উপজেলার পারুলিয়া বাজার থেকে মিলনবাজার এলাকায় অধ্যক্ষ আবু বক্কর সিদ্দিক শ্যামল, উপজেলা পরিষদ চত্বর থেকে বড়খাতা বাজার এলাকায় উপজেলা চেয়ারম্যান লিয়াকত হোসেন বাচ্চু এবং পাটগ্রামের বাউরা থেকে বুড়িমারী জিরোপয়েন্ট এলাকায় উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আনোয়ারুল ইসলাম নাজু, উপজেলা চেয়ারম্যান রুহুল আমীন বাবুল বক্তব্য রাখেন।

 

মতামত...