,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

টঙ্গীর তুরাগ তীরে বিশ্ব ইজতেমা শুরু

814নিজস্ব প্রতিবেদক,ঢাকা,৭, জানুয়ারি (বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকম)::  আগামীকাল শুক্রবার ফজরের নামাজের পর আমবয়ানের মধ্য দিয়ে আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হচ্ছে মুসলিম উম্মাহর দ্বিতীয় বৃহত্তম ধর্মীয় সমাবেশ বিশ্ব ইজতেমার প্রথম পর্ব।লাখো মুসল্লির মুখে উচ্চারিত হবে আল্লাহু আকবার ধ্বনি টঙ্গীর তুরাগ নদের তীরে বিশ্ব ইজতেমা ময়দানে দলে দলে আসছেন তাবলিগ জামাতের সদস্যরা। এরই মধ্যে সহস্রাধিক বিদেশি মেহমানসহ লাখো মুসল্লি বুধবার রাত পর্যন্ত ইজতেমা ময়দানের বিশাল সামিয়ানার নিচে আশ্রয় নিয়েছেন। মুসল্লিদের পদচারণায় মুখর হয়ে উঠেছে তুরাগ তীর। তাবলিগের রেওয়াজ অনুযায়ী বৃহস্পতিবার ফজরের নামাজের পরই ইজতেমা ময়দানে তিন দিনব্যাপী সুশৃঙ্খলভাবে অবস্থান, ইবাদত-বন্দেগির নিয়ম-কানুন ও করণীয় নিয়ে বয়ান শুরু হয়। তিন দিন ধরে ইজতেমায় ইমান, আমল, আখলাকসহ তাবলিগের ছয় উসুল বা মূলনীতির ওপর বয়ান করবেন তাদের শীর্ষ মুরব্বিরা। এ বছর প্রথম পর্বে ১৬ জেলা এবং দ্বিতীয় পর্বে ১৬ জেলার মুসল্লিরা অংশ নেবেন। বাকি ৩২ জেলার মুসল্লিরা ২০১৭ সালে অনুষ্ঠেয় ইজতেমায় অংশ নেবেন। এ ব্যাপারে আগেই বিভিন্ন জেলা তাবলিগ জামাতের আমিরদের মাধ্যমে মুসল্লিদের অবহিত করা হয়েছে বলে জানান আয়োজকরা। এবারের ইজতেমায় প্রথম পর্বে অংশ নেবেন- ঢাকা জেলার একাংশ, নারায়ণগঞ্জ, শেরপুর, মাদারীপুর, সিরাজগঞ্জ, নাটোর, গাইবান্ধা, নীলফামারী, পঞ্চগড়, লক্ষ্মীপুর, সিলেট, নড়াইল, মাগুরা, চট্টগ্রাম, পটুয়াখালী, ভোলা ও ঝালকাঠির মুসল্লিরা। রোববার আখেরি মোনাজাতের মধ্য দিয়ে প্রথম পর্বের ইজতেমা শেষ হবে। চারদিন বিরতির পর ১৫ জানুয়ারি দ্বিতীয় পর্ব শুরু হবে। দ্বিতীয় পর্বে অংশ নেবেন ঢাকার বাকি অংশসহ ১৬টি জেলার তাবলিগ অনুসারী। দ্বিতীয় পর্বে অংশ নেবেন- ঢাকা জেলার একাংশ, নেত্রকোনা, ফরিদপুর, জামালপুর, নরসিংদী, রাজশাহী, কুড়িগ্রাম, বগুড়া, ঠাকুরগাঁও, ফেনী, কুমিল্লা, সুনামগঞ্জ, খুলনা, ঝিনাইদহ, চুয়াডাঙ্গা ও পিরোজপুরের মুসল্লিরা। ইজতেমায় আগত মুসল্লিদের সার্বিক নিরাপত্তা নিশ্চিত করতে চার স্তরে নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানান গাজীপুরের জেলা পুলিশ সুপার মোহাম্মদ হারুন অর রশিদ।

মতামত...