,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

পেকুয়ায় ইউপি নির্বাচনে আওয়ামীলীগ বিএনপি মুখোমুখি

loglচকরিয়া সংবাদ দাতা,  নিউজ রিভিউজ ডটকমঃ কক্সবাজার, দলীয় প্রতীকে অনুষ্ঠিতব্য  প্রথম ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচন নিয়ে ভোটারদের আগ্রহ অনেক বেশী ।প্রতীক বরাদ্দের  আগেই পেকুয়ার ইউপি নির্বাচনের প্রচার প্রচারণা জমজমাট হয়ে উঠেছে । চায়ের দোকান, বাজার, ষ্টেশন সব স্থানেই এখন ইউপি নির্বাচনই আলোচনার বিষয় । তবে সুষ্ঠু নির্বাচন হবে কিনা তা নিয়ে এখনো সংশয়ে আছে ভোটা্ররা । অনেকে আবার চেয়ে আছে প্রথম দফা নির্বাচন কি রকম হয় সেটা দেখার জন্য। ভোটারদের সন্দেহ সংশয় যাই থাকুক প্রার্থীরা এলাকা চষে বেড়াচ্ছেন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত। কোথাও কোথাও প্রার্থীদের প্রচারণায় বাধা দেয়ার অভিযোগও পাওয়া যাচ্ছে। বিভিন্ন প্রার্থী ভিন্ন ভিন্ন কৌশলে প্রচারণা করছে বলে তাদের কর্মীদের সাথে কথা বলে জানা গেছে। কেউ হাউস ক্যাম্পিং করছেন পুরোদমে। আবার কেউ করছেন ষ্টেশন ক্যাম্পিং। কেউ কেউ পাড়া মিটিং, উঠান বৈঠক, মহিলা সমাবেশ, দলীয় কর্মী সমাবেশ এসব করেই ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন। বিশেষ করে বড় দুই দলের মনোনয়ন পাওয়া প্রার্থীদের তৎপরতা রয়েছে চোখে পড়ার মতোই।

বড় দুই রাজনৈতিক দল আওয়ামীলীগ ও বিএনপিতে এখনো জ্বলছে বিদ্রোহের আগুন। মনোনয়ন বঞ্চিতরা স্বতন্ত্র প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন পত্র দাখিল করেছেন। কেউ আবার পাড়ি  দিয়েছেন জাতীয় পার্টিতে। সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী পেকুয়া সদর ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে আছেন উপজেলা যুবলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর আলম। টইটং ইউনিয়নে উপজেলা আওয়ামীলীগে যুগ্ম সম্পাদক ও সাবেক চেয়ারম্যান শহিদুল্লাহ বিএ দলের মনোনয়ন না পেয়ে জাতীয় পার্টির লাঙ্গল প্রতীক নিয়ে নির্বাচনে লড়ছেন বলে জানা গেছে। ওই ইউনিয়নে বিএনপির বিদ্রোহী প্রার্থী হিসেবে আছে উপজেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক ও বর্তমান চেয়ারম্যান মোসলেম উদ্দিন, রাজাখালী ইউনিয়নের বিএনপির বিদ্রোহী হিসেবে আছেন বিএনপি নেতা নুরুল আবসার বধু, আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী হিসেবে আছেন আওয়ামীলীগ নেতা ছৈয়দ নুর, উজানটিয়া ইউনিয়নের আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী হিসেবে আছেন ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি তোফাজ্জল করিম।

উপজেলা আওয়ামীলীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি এডভোকেট কামাল হোসেন বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমকে বলেন, আমরা মনোনয়ন প্রত্যাহারের তারিখ পর্যন্ত পর্যবেক্ষণ করছি। শেষ পরযায়ে বিদ্রোহীর ব্যাপারে দল কঠোর সিদ্ধান্ত নেবে । বিএনপির বিদ্রোহীদের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বলেন, মনোনয়ন না পাওয়ায় এখন একটু মান অভিমান থেকে অনেকে বিদ্রোহী হয়েছে সময় হলে সবকিছু স্বাভাবিক হয়ে যাবে বলে জানান তিনি। জামায়াতের নেতাদের সাথে কথা বলে জানাযায়, জামায়াত ইসলামী স্বতন্ত্র প্রার্থীর ব্যানারে প্রার্থী দিয়েছে ৪ টি ইউনিয়নে। মগনামায় বর্তমান চেয়ারম্যান ও জামায়াত নেতা শহিদুল মোস্তাফা চৌধুরী, বারবাকিয়ায় বর্তমান চেয়ারম্যান ও জামায়াত নেতা মওলানা বদিউল আলম জিহাদী, টইটং ইউনিয়নে জামায়াত নেতা হাসান শরিফ চৌধুরী ও রাজাখালী ইউনিয়নে শিবির নেতা হুমায়ূন কবির স্বতন্ত্র প্রার্থীর ব্যানারে প্রার্থী নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন বলে নিশ্চিত করেছেন উপজেলা জামায়াতে সেক্রেটারী মওলানা ইমতিয়াজ ও উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান জামায়াত নেতা নুরুজ্জামান। এদিকে জাতীয় পার্টি প্রার্থী দিয়েছে উজানটিয়া ইউনিয়নে উপজেলা জাতীয় পার্টির সহ-সভাপতি দেলওয়ার করিম চৌধুরী, বারবাকিয়া ইউনিয়নের শহিদুল ইসলাম চৌধুরী, টইটং ইউনিয়নে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী ও সাবেক চেয়ারম্যান শহিদুল্লাহ বিএ, মগনামায় সাবেক চেয়ারম্যান ইউনুছ চৌধুরী। উপজেলা জাতীয় পার্টির জ্যেষ্ঠ্য সহ-সভাপতি সাংবাদিক দিদারুল করিম চৌধুরী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। সর্বশেষ তথ্য নিয়ে জানা যায়, উপজেলার ৭ ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৪০ জন সহ বিভিন্ন পদে মোট ৪০৫ জন মনোনয়নপত্র দাখিল করেছিলেন। কিন্তু বাছাইয়ে ঋণ খেলাপির দায়ে চেয়ারম্যান পদে ২ জন সহ মোট ৭ জনের প্রার্থিতা বাতিল ঘোষণা করা হয়েছে।

টইটং, বারবাকিয়া ও শিলখালী ইউনিয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা মুনিরুজ্জামান রাব্বানী বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমকে জানান, টইটং ইউনিয়নের ২ জন চেয়ারম্যান প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল  হয়েছে। তারা হলেন, স্বতন্ত্র প্রার্থী রেজাউল করিম ও হাবিব উল্লাহ। এছাড়া বারবাকিয়া ইউনিয়নের ৬ নং ওয়ার্ড়ের সাধারণ সদস্য প্রার্থী নুরুল আমিন মাতব্বরের প্রার্থিতাও কৃষি ব্যাংকের ঋণ খেলাপির দায়ে বাতিল করা হয়েছে। পেকুয়া সদর ও রাজাখালী ইউনিয়নের দায়িত্বপ্রাপ্ত রিটার্নিং অফিসার ও উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা হাসান মুরাদ চৌধুরী জানান, পেকুয়া সদরের ৭ নং ওয়ার্ড়ের সাধারণ সদস্য প্রার্থী ফেরদৌস আহমদ ও বদিউল আলমের মনোনয়ন পত্র কৃষি ব্যাংকের ঋণ খেলাপির দায়ে বাতিল করা হয়েছে। আগামী ১৩ মার্চ মনোনয়ন প্রত্যাহারের শেষসময় এবং ওই দিনই প্রতীক বরাদ্দ দেয়া হবে জানান উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা মোহাম্মদ শাখাওয়াত হোসেন।

 

বি এন আর/০০১৬০০৩০০১০/০০০১৫৮/পি

মতামত...