,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

বগুড়ায় এক বছর আগে নিখোঁজ রিগ্যানই আহত ‘জঙ্গি’ হাসান

aa2নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ রিভিউজঃ  রাজধানীর কল্যাণপুরের ‘জঙ্গি আস্তানায়’পুলিশের অভিযানকালে আহত অবস্থায় আটক হাসানের প্রকৃত নাম রাকিবুল হাসান ওরফে রিগ্যান।

সে এক বছর ধরে নিখোঁজ ছিল। সম্প্রতি পুলিশের তৈরি নিখোঁজদের তালিকাতে রিগ্যানের নাম  রয়েছে।

aতার বাড়ি বগুড়া শহরের সরকারি আজিজুল হক কলেজ নতুন ভবন সংলগ্ন জামায়াত শিবির অধ্যুষিত এলাকা হিসেবে পরিচিত জামিলনগর এলাকায়। সে ওই এলাকার মৃত রেজাউল করিমের ছেলে। মা রোকেয়া আকতার বগুড়ার নন্দীগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে জৈষ্ঠ্য সেবিকা (সিনিয়র নার্স) হিসেবে কর্মরত ।

মঙ্গলবার সকালে আহত অবস্থায় রিগ্যান ঢাকায় গ্রেফতারের পর দুপুরে বগুড়া সদর থানা পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তার মা রোকেয়া আক্তারকে থানায় নিয়ে এসে জিজ্ঞাসাবাদ করলে এমন তথ্যই বেরিয়ে আসে ।

রিগ্যানের বাড়িতে গিয়ে জানা গেছে, রাকিবুল হাসান ওরফে রিগ্যানের বাবা রেজাউল করিম মারা গেছেন। তার মা রোকেয়া আক্তার নন্দীগ্রাম উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জ্যেষ্ঠ নার্স। তার এক বোন আছে।

রোকেয়া আক্তার জানান, একমাত্র ছেলে  রিগ্যান ২০১৩ সালে বগুড়া শহরের করতোয়া মাল্টিমিডিয়া স্কুল এ্যান্ড কলেজ থেকে এসএসসি পাস করে। এরপর ২০১৫ সালে সরকারি শাহসুলতান কলেজ থেকে এইচএসসি পাস করে মেডিকেল কলেজে ভর্তির জন্য শহরে রেটিনা কোচিং সেন্টারে ভর্তি হয়। এরপর গত বছরের ১৪ জুলাই কোচিং সেন্টারে যাওয়ার কথা বলে রিগ্যান নিখোঁজ হয়। পরদিন তিনি বগুড়া সদর থানায় ছেলে নিখোঁজ হওয়ায় ঘটনায় সাধারণ ডায়রি  (জিডি) করেন। ( জিডিনং- ১৭২০ তারিখ-১৫-০৭-১৫)। রিগ্যান গত এক বছর ধরে কোনো যোগাযোগ করেনি। মঙ্গলবার দুপুরে বগুড়া সদর থানা থেকে একদল পুলিশ বাসায় আসলে ছেলের বিপথগামী হবার বিষয়টি জানতে পারি।

রোকেয়া আক্তার আরো জানান, তার চাকরির টাকা দিয়েই সংসার চলে। ২০১২ সালে স্বামী মারা যাওয়ার পর তিনি জামিলনগরে জায়গা কিনে টিনশেড বাড়ি করে বসবাস করছেন। ছেলে নিখোঁজ হওয়ার পর জিডির কপি নিয়ে তিনি থানা পুলিশ থেকে শুরু করে র‌্যাব ক্যাম্পে একাধিক বার যোগাযোগ করেও ছেলের কোন সন্ধান পাননি।

ছেলে সম্পর্কে তিনি বলেন ‘রিগ্যান খুব ভাল ছেলে ছিল। নিয়মিত নামাজ আদায় করতো। বাইরে ঘোরাফেরা  কম করতো। বন্ধুবান্ধব তেমন একটা ছিল না। বেশিরভাগ সময় পড়াশুনা করেই বাসায় সময় কাটাতো।

তিনি আরো জানান, তার বাসায়  একজন ভাড়াটিয়া ছিল ।  তার এক ছেলে মোমায়নুল ইসলাম শিহাবের সঙ্গে মেশার পর থেকেই রিগ্যান বিপথে চলে গেছে বলে তিনি সন্দেহ করছেন। রিগ্যান নিখোঁজ হওয়ার পর ওই ভাড়াটিয়ার ছেলেও নিখোঁজ হয়। এর কিছুদিন পর ওই ভাড়াটিয়া বাসা ছেড়ে চলে যায়।

বগুড়া সদর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল বাসার বলেন, রাকিবুল হাসান ওরফে রিগ্যানের মাকে জিজ্ঞাসাবাদ করতে দুপুরের দিকে থানায় নেয়া হয়েছিল। ছেলের পরিচয় নিশ্চিত হওয়ার পর তাকে  ছেড়ে দেয়া হয়েছে।

 

মতামত...