,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

বঙ্গবন্ধু শিশুদের অত্যন্ত ভালবাসতেনঃ মেয়র

aনিজস্ব প্রতিবেদক, বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমঃ হাজার বছরের শ্রেষ্ঠ বাঙালি, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এঁর ৯৭ তম জন্ম দিবস ও জাতীয় শিশু দিবস ১৭ মার্চ  বৃহস্পতিবার, ব্যাপক কর্মসূচির মাধ্যমে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে উদযাপিত হয়। ক্ষুধা, দারিদ্র ও নিরক্ষর মুক্ত বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা গড়ার প্রত্যয়কে সামনে রেখে চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের কর্মসূচিতে ছিল জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পন, পবিত্র খতমে কোরআন, মিলাদ ও মোনাজাত, উপস্থিত বক্তৃতা, চিত্রাংকন ও রচনা প্রতিযোগিতা এবং আলোচনা সভা ও পুরস্কার বিতরণ। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন ভোরে জাতির পিতার প্রতিকৃতিতে পুষ্পমাল্য অর্পন করেন। তিনি জাতীয় পতাকা উত্তোলন এবং বেলুন উড়িয়ে দিনের কর্মসূচির সূচনা করেন। পরে মেয়র জাতির পিতার জন্ম দিনের কেক কাটেন এবং মোনাজাতে শরিক হন। তিনি সিটি কর্পোরেশনের শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীদের উপস্থিত বক্তৃতার সময় উপস্থিত ছিলেন। পরে কে বি আবদুচ ছত্তার মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয় আলোচনা সভা ও বিজয়ীদের মাঝে পুরস্কার বিতরণ অনুষ্ঠান। এতে সভাপতিত্ব করেন শিক্ষা ও স্বাস্থ্য বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভাপতি কাউন্সিলর নাজমুল হক ডিউক। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশনের মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন। আলোচনা সভা সহ অন্যান্য কর্মসূচিতে প্যানেল মেয়র চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, অর্থ বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভাপতি শফিউল আলম, বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিষয়ক স্থায়ী কমিটির সভাপতি শৈবাল দাশ সুমন, কাউন্সিলর তারেক সোলায়মান সেলিম, মোহাম্মদ গিয়াস উদ্দিন, হাসান মুরাদ বিপ্লব, মো. হাবিবুল হক, জহুরুল আলম জসিম, সাহেদ ইকবাল বাবু, মো. মোরশেদুল আলম, সংরক্ষিত ওয়ার্ড কাউন্সিলর নিলু নাগ, ফেরদৌসি আকবর, আবিদা আজাদ, জেসমিন পারভীন জেসি, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা কাজী মোহাম্মদ শফিউল আলম, সচিব রশিদ আহমদ, প্রধান প্রকৌশলী লে. কর্ণেল মহিউদ্দিন আহমদ, প্রধান শিক্ষা কর্মকর্তা মিসেস নাজিয়া শিরিন, প্রধান রাজস্ব কর্মকর্তা মো. মঞ্জুরুল ইসলাম, শিক্ষার্থী মো. ইসমাঈল, সাদেকুর রহমান, মিথিলা মাহমুদ, মাহবুব মিঞা ও সুবর্ণা ঘোষ বক্তব্য রাখেন। প্রধান অতিথির বক্তব্যে সিটি মেয়র আলহাজ্ব আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান শিশুদের অত্যন্ত ভালবাসতেন। সে কারণে বাংলাদেশ জাতির পিতার জন্ম দিবসকে জাতীয় শিশু দিবস হিসেবে উদযাপন করছে। মেয়র বলেন, শিশুদের সুন্দর ভবিষ্যৎ এবং সুখী সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে দল-মত-নির্বিশেষে সবাইকে সম্মিলিত ভাবে কাজ করতে হবে। তিনি বলেন, জাতির পিতা শুধু বাঙালি জাতিরই নয়, তিনি ছিলেন বিশ্বের সকল নিপীড়িত-শোষিত বঞ্চিত মানুষের অধিকার আদায় ও মুক্তির অগ্রনায়ক। জনাব আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, ১৯৭৫ সনের ১৫ আগষ্ট স্বাধীনতার পরাজিত শক্তি ষড়যন্ত্রের মাধ্যমে জাতির পিতাকে স্বপরিবারে হত্যা করে দেশকে পিছনে নিয়ে যাওয়া হয়। মেয়র বলেন, প্রধানমন্ত্রীর নেতৃত্বে বাংলাদেশ উন্নয়ন ও অগ্রগতির পানে এগিয়ে যাচ্ছে। এ ধারাকে অব্যাহত রাখতে তিনি দেশবাসীর সহযোগিতা কামনা করেন।

 

বি এন আর/০০১৬০০৩০০১৭/০০০২৭১  /পি

মতামত...