,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

বাংলাদেশের উন্নয়নে পাশে থাকবে জাইকা

a

জাইকা প্রেসিডেন্ট শিনিচি কিতাওকা

নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডিনিউজ রিভিউজঃ গুলশান হামলায় জাপানি সাহায্য সংস্থা জাপান ইন্টারন্যাশনাল কো-অপারেশন এজেন্সি’র (জাইকা) সাত জাপানি পরামর্শক নিহত এবং একজন আহত হওয়ার ঘটনায় গভীর শোক দুঃখ প্রকাশ করে সংস্থাটির প্রেসিডেন্ট শিনিচি কিতাওকা বলেছেন,অতীতের মতোই বাংলাদেশের উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে পাশে থাকবে জাইকা।

বুধবার (জুলাই ৬) জাইকার ওয়েবসাইটে প্রকাশিত এক বিবৃতিতে এ অঙ্গীকার ব্যক্ত করেন জাইকার প্রেসিডেন্ট বলেন, ‘বাংলাদেশের উন্নয়নে অবদান রাখতে আমরা দৃঢ়ভাবে অঙ্গীকারবদ্ধ।’

বিবৃতিতে, অপর এক সন্ত্রাসী হামলায় বাংলাদেশের উত্তরাঞ্চলে এক জাপানি নাগরিকের মৃত্যুর ঘটনায় জাইকা কর্মীদের নিরাপত্তা ব্যবস্থা জোরদার করা সত্ত্বেও জাইকা কর্মীদের হতাহত হওয়ার ঘটনায় গভীর দুঃখ প্রকাশ করেন জাইকা প্রেসিডেন্ট।

তিনি বলেন, হতাহত জাপানি নাগরিকরা শুধু বাংলাদেশে জরিপ করতেই আসেননি, তারা একটি উন্নয়নশীল দেশের অগ্রগতিতেও অবদান রাখছিলেন।

বিবৃতিতে হতাহতদের পরিবারের সদস্যদের পাশে থাকারও ঘোষণা দেন জাইকা প্রেসিডেন্ট। গুলশান হামলার প্রেক্ষিতে জাইকা কর্মীদের কর্মস্থল সম্পর্কে বিস্তারিত খোঁজ নেয়া এবং কর্মীদের নিরাপত্তা প্রদানই এ মুহূর্তে সবচেয়ে বেশি গুরুত্ব পাবে বলেও এ বিবৃতিতে উল্লেখ করেন জাইকা প্রেসিডেন্ট শিনিচি কিতাওকা।

উল্লেখ্য, ১ জুলাই রাতে গুলশানের আর্টিসান বেকারিতে সংঘটিত নারকীয় হত্যাযজ্ঞে দেশি বিদেশি নাগরিকদের সঙ্গে মারা যান ৭ জাপানি নাগরিক। আহত হন একজন। জাইকার তরফে বাংলাদেশের মেট্রোরেল প্রকল্পে পরামর্শক হিসেবে নিযুক্ত ছিলেন তারা।

ওই ঘটনার পর একটি আন্তর্জাতিক সংবাদপত্রের বরাতে দেশের সংবাদমাধ্যমগুলো খবর দিয়ে আসছিলো  বাংলাদেশ থেকে উন্নয়ন সহযোগিতার হাত গুটিয়ে নিতে যাচ্ছে জাইকা। বাংলাদেশের সঙ্গে জাইকার সহযোগিতামূলক সম্পর্ক ছিন্নসহ অন্যান্য নেতিবাচক খবরও প্রকাশিত হতে থাকে।

এমনই একটি সময়ে জাইকা প্রেসিডেন্টের এই বিবৃতি বাংলাদেশ সম্পর্কে জাইকার অবস্থান স্পষ্ট করেছে বলে মনে করা হচ্ছে।

 

মতামত...