,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

বাল্য বিয়ে বন্ধ করলেন আনোয়ারায় উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট

বাল্য বিয়েরখবর পেয়ে বন্ধ করলেন আনোয়ারায় উপজেলা নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট ও সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. আব্দুল মোমিন।

শুক্রবার উপজেলার পরৈকোড়া ইউনিয়নের ভিংরোল গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

জানা যায়, আনোয়ারা উপজেলার ভিংরোল গ্রামের বাসিন্দা মৃত মৌলভী সৈয়দ আহমদের পুত্র মো. ওসমানের (২৫) সাথে পার্শ্ববর্তী দেওতলা গ্রামের ওসমানের মেয়ে সারমিন আকতারের (১৫) বিয়ের কথাবার্তা হয়। এ উপলক্ষে শুক্রবার বিয়ের কাবিন করার জন্য আয়োজন চলছিলো। এর আগে বরের বড় ভাই মো. লোকমান বাল্য বিয়ে বন্ধ করার জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবরে আবেদন করেন। তার আবেদনের প্রেক্ষিতে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা গৌতম বাড়ৈ সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল মোমিনকে বাল্য বিয়ে বন্ধের ব্যবস্থা নেয়ার নির্দেশ দেন। সহকারী কমিশনার (ভূমি) আব্দুল মোমিন তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে বিয়ের কাবিন বন্ধ করেন। পরে বাল্য বিয়ে আয়োজনের অপরাধ ও পরবর্তীতে যেন গোপনে বিয়ে দিতে না পারে এবং প্রাপ্ত বয়স্ক হলে মেয়েকে বিয়ে দেয়ার জন্য মেয়ের বাবা থেকে মুচলেকা নেন।

স্থানীয় মেম্বার আব্দুল মালেক ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে বলেন, শুক্রবার বিয়ের কাবিনের কথা ছিল। ওই সময় নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট এসে বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে। মেয়েটি স্থানীয় একটি উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণির ছাত্রী। সে নিজেও বাল্য বিয়ের বিপক্ষে ছিল। তার ইচ্ছার বাইরে মা–বাবা বিয়ের আয়োজন করেছিলো বলে স্থানীয়দের অভিযোগ রয়েছে।

মতামত...