,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

মহাসড়কে ডাকাতি বন্ধে ঝোপ-জঙ্গল পরিস্কার করল পুলিশ

মোঃ নাজিম উদ্দিন, দক্ষিণ চট্টগ্রাম,বিডিনিউজ রিভিউজ.কম::চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের দু’পাশে ঝোপ-জঙ্গলে লুকিয়ে থেকে দীর্ঘদিন সাতকানিয়ার নয়াখাল এলাকায়  ডাকাতি-ছিনতাইয়ের ঘটনা ঘটাচ্ছে ডাকাত দল।  ডাকাতি প্রতিরোধে হাইওয়ে পুলিশ জঙ্গলগুলো সরাতে উদ্যোগ নিয়েছে। গত রোববার রাত আড়াই টার দিকে পাঠাননি পুল এলাকায় একটি মাইক্রোবাসে ডাকাতি সংঘটিত হয়। ডাকাত দল গাড়িতে থাকা লোকজনকে মারধর করে নগদ টাকা ও মোবাইল সেট ছিনিয়ে নেয়। এ সময় কয়েকজন আহত হয়।
পর্যটন মৌসুমকে সামনে রেখে পর্যটক ও সর্বসাধারণ নির্ভয়ে এবং অবাধে যাতায়াত করতে পারে সে লক্ষ্যে দোহাজারী হাইওয়ে থানা পুলিশ এই উদ্যোগ গ্রহণ করেছে।
৩১ অক্টোবর মঙ্গলবার সকাল নয়টায়  মৌলভীর দোকান থেকে দক্ষিণে সড়কের উভয় পাশে পাঠানি পুল পর্যন্ত ঝোপ-জঙ্গলগুলি পরিস্কার করে দোহাজরী হাইওয়ে থানার ওসি মিজানুর রহমানের নেতৃত্বে একটি ফোর্স।
দোহাজারী হাইওয়ে থানার অফিসার ইনচার্জ মিজানুর রহমান জানান, তাঁর থানার আওতাধীন স্পর্শকাতর এলাকার (মুজাফফরাবাদ থেকে চুনতি পর্যন্ত) ঝোপ-জঙ্গল পর্যাক্রমে পরিস্কার করা হবে। এ কার্যক্রমে হাইওয়ে থানার আওতাধীন মহাসড়কের  এলাকার জনপ্রতিনিধিদের সহযোগিতা কামনা করেছেন।
আজকের কার্যক্রমে অংশগ্রহণ করেছে দোহাজারী হাইওয়ে থানা পুলিশ, কমিউনিটি পুলিশিং সদস্য ও কেওচিয়া ইউপি চেয়ারম্যান মনির আহাম্মদ ও ইউপি সদস্য আবদুস শুক্কুর।
দোহাজারী হাইওয়ে থানার ওসি মিজানুর রহমান বলেন, ডাকাতি ছিনতাই প্রতিরোধে রাতে পুলিশের টহল বাড়ানো হয়েছে। সড়কের পাশে ঝোপের মধ্যে লুকিয়ে থাকলে দেখা যায়না। ডাকাতরা সেখান থেকে রাতে প্রাইভেট গাড়িতে ঢিল ছুড়ে মেরে গাড়ি  থামিয়ে ডাকাতির ঘটনা ঘটায়। তাই ডাকাত প্রতিরোধে এ উদযোগ নেয়া হয়েছে।

মতামত...