,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

মুলা শাকের দাম ৭ লাখ!

aনিজস্ব প্রতিবেদক,বিডিনিউজ রিভিউজ.কম:: মুলা শাকের দাম ৭ লাখ! ব্যাপারটি যে কারো কাছে অবিশ্বাস্য মনে হতে পারে। কিন্তু প্রকৃত ঘটনা হচ্ছে- ইয়াবার বদলে প্যাকেটে মুলা শাক ভরে ক্রেতার কাছ থেকে ৭ লাখ টাকা হাতিয়ে নেয়ার মহা আয়োজন করেছিলেন নূর খান (১৮) নামে এক যুবক। কিন্তু নুর খান বুঝতে পারেন নি ক্রেতা পুলিশের সোর্স এবং তিনি পুলিশের জালে আটকে গেছেন। অনেকটা শাক দিয়ে মাছ ঢাকার মতো মুলা শাক দিয়ে ইয়াবা ঢাকার আয়োজন করেছিলেন নুর খান। যদিও মুলা শাকের ভেতরে কোন ইয়াবা ছিল না। গতকাল বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় নুর খানকে নগরীর নিউমার্কেট থেকে আটক করেছে নগর গোয়েন্দা পুলিশের একটি টিম। তিনি আনোয়ারা উপজেলার বারশত ইউনিয়নের দুধকুমড়া গ্রামের আব্দুর রহমানের ছেলে। নগরীর ইপিজেড থানার কলসী দীঘির ?পাড় এলাকায় থাকেন নূর। এ বিষয়ে নগর গোয়েন্দা পুলিশের উপ কমিশনার (উত্তর-দক্ষিণ) পরিতোষ ঘোষ বলেন, নূর খান ইয়াবা বিক্রেতা। তাকে ধরতে আমরা ক্রেতা সেজে ফাঁদ পেতেছিলাম। কিন্তু তাকে ধরতে গিয়ে দেখলাম সে একজন বড় প্রতারকও। ইয়াবার কথা বলে সে প্যাকেটের ভেতরে মুলা শাক ঢুকিয়ে দিয়েছিল। জানা গেছে, নগর গোয়েন্দা পুলিশের একজন সোর্স ইয়াবার ক্রেতা সেজে নূর খানের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। চার হাজার ইয়াবার জন্য সাত লাখ টাকা দাম চেয়েছিল নূর। সাত লাখ টাকায় রাজি হয়ে সোর্স তাকে ইয়াবা নিয়ে নিউমার্কেটের এক নম্বর গেটে আসতে বলেন। নূর খান শর্ত দেয়, ইয়াবা হস্তান্তরের আগে তার সামনে টাকার বান্ডিল প্রদর্শন করতে হবে। উপ-পুলিশ কমিশনার পরিতোষ ঘোষ জানান, শর্ত অনুযায়ী নূর খানকে টাকা দেখানো হয়। সে চার হাজার ইয়াবা আছে বলে ২টি প্যাকেট ক্রেতার কাছে হস্তান্তর করে। এ সময় আমাদের টিম নূর খানকে আটকে ফেলে। কিন্তু প্যাকেটগুলো খুলে পাওয়া গেছে মুলা শাক। আটক নূর খানের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়ার প্রক্রিয়া চলছে বলে উপ-পুলিশ কমিশনার জানিয়েছেন।

বাংলা নিউজের প্রতিবেদন।

মতামত...