,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

সাতকানিয়ায় ইউপি নির্বাচনে প্রার্থীদের বিরামহীন প্রচারনা


aমোঃ নাজিম উদ্দিন,
দক্ষিণ চট্টগ্রাম প্রতিনিধি,বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমঃচট্টগ্রামের সাতকানিয়ায় ই ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনের দিন যতই ঘনিয়ে আসছে সাতকানিয়া উপজেলার ১৭ ইউনিয়নে সকল প্রার্থীদের প্রচার প্রচারনা জমে উঠেছে। আগামী ৪ জুন অনুষ্ঠিত হবে ষষ্ঠ ধাপের ইউপি নির্বাচন। নির্বাচনের আর বাকী ৪দিন এখন প্রার্থীরা চালাচ্ছেন অনেকটা শেষ মুহুর্তের প্রচারনা। ভোর থেকে গভীর রাত পর্যন্ত ঘুড়ে বেড়াচ্ছেন এ পাড়া থেকে ওপাড়ায়। ঘরে ঘরে গিয়ে ধর্ণা দিচ্ছেন দূয়ারে দূয়ারে। লক্ষ্য সবারই এক শুধু ভোট ভিক্ষা। উপজেলার সর্বত্র বিরাজ করছে উৎসবমুখর পরিবেশ।
এবারের নির্বাচনে উপজেলার ১৭টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান, সাধারন সদস্য ও সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে সর্বমোট ৭৪৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। তন্মধ্যে চেয়ারম্যান পদে ৬৩ জন, সাধারন সদস্য পদে ৫৫৭ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১২৩ জন রয়েছেন।
গত ২০ মে শুক্রবার প্রতিক বরাদ্দের পর থেকে স্ব-স্ব এলাকায় প্রার্থীরা প্রচন্ড তাপদাহ উপেক্ষা করে ঘাম ঝরিয়ে দিনরাত প্রচারণা চালিয়ে যাচ্ছেন।
উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়ন ঘুরে দেখা যায়, সরকার দলীয় প্রার্থী,বিদ্রোহী প্রার্থী ও স্বতন্ত্র প্রার্থীদের প্রচারনায় কোন ধরনের কমতি নেই। সমানতালে সব প্রার্থী তাঁদের প্রচারনা চালিয়ে যাচ্ছেন। তবে সরকার দলীয় প্রার্থীরা প্রচারনায় স্বাচ্ছন্দ্য বোধ করলেও বিদ্রোহী ও স্বতন্ত্র প্রার্থীরা ভয়ভীতি ও শঙ্কা নিয়ে প্রচার প্রচারণা চালাচ্ছেন। ইতিমধ্যে বিরোধী দলের এক প্রার্থীর প্রচারনায় নিয়োজিত লোকদের মারধরের অভিযোগ পাওয়া গেছে।
এদিকে নির্বাচনের দিন ভোটকেন্দ্রগুলোতে পুলিশ, আনসার ও ভিডিপি সদস্য মোতায়েন থাকবে বলে জানান সাতকানিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মো. ফরিদ উদ্দিন খন্দকার। উপজেলার ১৫৪টি কেন্দ্রর মধ্যে ৭০টি ঝুঁকিপূর্ণ হিসেবে চিহ্নিত করেছে প্রশাসন। সংশ্লিষ্ট প্রশাসন সূত্রে জানা যায় ঝুঁকিপূর্ণ এসব কেন্দ্রে অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েনের পাশাপাশি র‌্যাব, বিজিবি ও পুলিশের ষ্ট্রাইকিং ফোর্স টহল দেবে।
প্রতিক নিয়ে যাঁরা উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ভোট যুদ্ধে নেমেছেন তাঁরা হলেন চরতি ইউনিয়নে এডভোকেট প্রদীপ কুমার চৌধুরী(নৌকা), ডা. রেজাউল করিম(মটর সাইকেল) ও মমতাজ উদ্দিন (আনারস), আমিলাইষ ইউনিয়নে সরওয়ার উদ্দিন চৌধুরী(নৌকা), এডভোকেট মো. বেলাল উদ্দিন(ধানের শীষ), মো. ফরিদ আহমদ(চশমা), এসএম হারুন(মটর সাইকেল), এইচএম হানিফ(আনারস) ও মোহাম্মদ ইব্রাহিম(ছাতা), খাগরিয়া ইউনিয়নে আকতার হোসেন(নৌকা) ও মোহাম্মদ জসীম উদ্দিন(আনারস), নলুয়া ইউনিয়নে তছলিমা আকতার(নৌকা), শাহ আলম(আনারস), দিদারুল ইসলাম(মটর সাইকেল), শাহজাহান মোহাম্মদ আবু ইউনুচ(ঘোড়া) ও হাজী মোহাম্মদ শাহ আলম(ধানের শীষ), কাঞ্চনায় ইউনিয়নে রমজান আলী(নৌকা), খোরশেদুল আলম(ধানের শীষ) ও মিজানুর রহমান মারুফ(আনারস), এঁওচিয়া ইউনিয়নে নজরুল ইসলাম মানিক(নৌকা), সেলিমুল ইসলাম(ধানের শীষ), মাহমুদুল হক চৌধুরী(আনারস), মহিউদ্দিন মোহাম্মদ সাদেক(চশমা), এরশাদ হোসাইন(ঘোড়া) ও আবদুর রশিদ(মটর সাইকেল), মাদার্শা ইউনিয়নে আ.ন.ম সেলিম(নৌকা), ফেরদৌস সিকদার(ধানের শীষ), রিদওয়ানুল হক(আনারস) ও ফজল করিম(মটর সাইকেল), ঢেমশা ইউনিয়নে রিদুয়ান উদ্দিন(নৌকা), আবদুল মজিদ বজল(ধানের শীষ), রমজান আলী মোহাম্মদ সাইফুল্লাহ(ঘোড়া), নুরুল আলম(মটর সাইকেল) ও মোহাম্মদ আবছার(আনারস), পশ্চিম ঢেমশা ইউনিয়নে আবু তাহের জিন্নাহ(নৌকা), এম.এম. মোমেন(ধানের শীষ), এ.জেড.এম. হেলাল চৌধুরী(আনারস) ও ফরিদুল ইসলাম(মটর সাইকেল), কেঁওচিয়া ইউনিয়নে ওসমান আলী(নৌকা), আরমান হোসেন(ধানের শীষ), আবুল কাশেম সওদাগর(ছাতা), কাজী লিয়াকত আলী(আনারস), মনির আহমদ(ঘোড়া), আবু ছালেহ শান(মটর সাইকেল), মাহাবুবুর রহমান(টেবিল ফ্যান) ও নুর হোসেন ফোরক কোম্পানী(টেলিফোন), কালিয়াইশ ইউনিয়নে হাফেজ আহমদ(নৌকা), হোসেন উদ্দিন আহমদ ভূট্টো(আনারস) ও করিম উদ্দিন ছোটন(মটর সাইকেল), বাজালিয়া ইউনিয়নে তাপস কান্তি দত্ত(নৌকা), মোহাম্মদ আলী(ধানের শীষ), নুরুল ইসলাম সিকদার(মটর সাইকেল) ও নুরুল আমিন সিকদার(আনারস), পুরানগড় ইউনিয়নে আ.ফ.ম মাহাবুল হক সিকদার(নৌকা), জসীম উদ্দিন(ধানের শীষ) ও রাশেদুল করিম চৌধুরী(আনারস), ছদাহা ইউনিয়নে মোসাদ হোসেন চৌধুরী(নৌকা) ও মোহাম্মদ কুতুব উদ্দিন রনি(আনারস), সাতকানিয়া সদর ইউনিয়নে মোহাম্মদ হারুনুুর রশিদ(নৌকা), নেজাম উদ্দিন(আনারস) ও মফিজুর রহমান(মটর সাইকেল) তাছাড়া ১৭ ইউনিয়নের মধ্যে সোনাকানিয়া ইউনিয়নের সরকার দলীয় প্রার্থী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হয়েছেন। অপরদিকে ধর্মপুর ইউনিয়নে আওয়ামলীগের নৌকা প্রতিকের প্রার্থী এম. ইলিয়াছ চৌধুরী বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হলে পরবর্তীতে আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী প্রার্থী আকতার হোসেন তাঁর মনোনয়ন বাতিলের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে আপীল বিভাগে রিট আবেদন দায়ের করেন। তাঁর দায়ের করা রিটের প্রেক্ষিতে হাইকোর্টের আপীল বিভাগ কর্তৃক মনোনয়ন বৈধ ঘোষিত হলে পূনরায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হচ্ছে। বর্তমানে তিনি মটর সাইকেল প্রতিক নিয়ে প্রতিদ্বন্দি¦তা করছেন।

মতামত...