,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

সীতাকুন্ডে বিয়ের ২৭ দিনের মাথায় গৃহ বধুর লাশ উদ্ধার

কামরুল ইসলাম দুলু

aসীতাকুন্ড সংবাদদাতা,বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমঃ সীতাকুন্ডের মাদামবিবির হাটস্হ সোনারগাঁ পেট্টোল পাম্পের পশ্চিমে জেলেপারা নারায়ণ সর্দারের বাড়িতে বিয়ের ২৭ দিনের মাথায় রুমা দাশ(১৩) নামের এক গৃহবধুর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছ পুলিশ। জানাযায়,৩মে শুক্রবার বিকাল ৫ টায় সময় রুমা দাশ শ্বশুর বাড়ীতে গলায় শাড়ি পেছিয়ে ঘরের ভিমের সাথে আত্নহত্যা করেছে বলে পুলিশ ধারণা করছে। তবে আত্নহত্যা নাকি হত্যা করে লাশ ঝুলিয়ে রেখেছে তাও ময়নাতদন্ত ছাড়া বলা যাচ্ছে না। এদিকে রুমা দাশের স্বামী লিটন দাশ, শ্বশুর, শাশুড়ীসহ ঘরের অন্যান্য সদস্যরা ঘটনার পর থেকে পালাতক রহিয়াছে। রুপা দাশের বড় ভাই রুবেল দাশ জানান,তার ছোট বোনকে স্বামী লিটন দাশসহ শ্বশুর-শাশুড়ী মিলে যৌতুকের জন্য ফাসিঁতে ঝুলিয়ে হত্যা করে পালিয়ে যায়। তারা বিয়ের পর থেকে ৫০ হাজার টাকা যৌতুক দেওয়ার জন্য আমার বোনকে প্রায় সময় নির্যাতন করতো। এনিয়ে বেশ কয়েকবার ঘরোয়াভাবে বৈঠকও হয় এবং আর কিছুদিন পর স্বামী লিটন দাশ ৫০ হাজার টাকা দেওয়া হবে বলেও জানান। উল্লেখ যে,মাদামবিবির হাটস্হ জেলে পাড়ার নারায়ণ সর্দারের বাড়ীর হরি কমল দাশের পুত্র লিটন দাশের সাথে গত  ৮ মে মাদামবিবির হাটস্হ কম্পিডেন্স সিমেন্ট ফ্যাক্টরীর পশ্চিম পাশ্বে জেলে পাড়া রামুন সর্দারের বাড়ীর হরি কমল দাশের কন্যা রুমা দাশের বিয়ে হয়। বিয়ের পর থেকেই যৌতুকের জন্য স্বামীসহ শ্বশুর বাড়ীর লোকজন রুমা দাশকে নির্যাতন করতো বলে জানান তার বাবা কমল দাশ। বিকাল ৫ টার সময় এঘটনা ঘটলেও সীতাকুন্ড মডেল থানার সেকেন্ড অফিসার আনোয়ার রাত সাড়ে নয়টার সময় ঘটনাস্হল থেকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে ফেরন করেন। এ ঘটনায় কাউকে গ্রেফতার করা সম্ভব হয়নি, এছাড়া ঘটনার পর থেকে রুমা দাশের স্বামী লিটন দাশ,শ্বশুড় হরি কমল দাস ও শাশুড়ি পালিয়ে যায়।

মতামত...