,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

সেরা প্রকল্প পরিচালকের খেতাব ইসহাক চৌধুরীর

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঢাকা, ১৯, ডিসেম্বর (বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকম): দেশের সরকারি প্রকল্পে ধীরগতি, প্রকল্প ব্যয় বৃদ্ধির বিষয়টি যখন নিত্যনৈমিত্তিক ব্যাপার হয়ে দাড়িয়েছে , তখনই ব্যতিক্রম করে দেখালেন যমুনা অয়েল কোম্পানির এক প্রকৌশলী ।  নির্ধারিত সময়ের আগে একটি সরকারি প্রকল্পের কাজ শেষ করে সেরা প্রকল্প পরিচালকের খেতাব পে332য়েছেন যমুনা অয়েল কোম্পানির সহকারী মহাব্যবস্থাপক প্রকৌশলী মো. ইসহাক চৌধুরী।

বাঘাবাড়ী অয়েল ডিপোতে ৩০ হাজার মেট্রিক টন ধারণ ক্ষমতার স্টোরেজ ট্যাংক নির্মাণ প্রকল্পটি নির্দিষ্ট সময়ের আগে এবং নির্ধারিত ব্যয়ের চেয়ে কম খরচে শেষ করায় সরকার তাকে এই প্রকল্প পরিচালককে সম্মাননা প্রদান করেছে।

এ উপলক্ষে সম্প্রতি জাতীয় বিদ্যুৎ ও জ্বালানি সপ্তাহ-২০১৫ এর এক অনুষ্ঠানে জ্বালানি প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ তার হাতে সেরা প্রকল্প পরিচালকের পুরস্কার তুলে দেন।

মো. ইসহাক চৌধুরী  বলেন, সিরাজগঞ্জ জেলার বাঘাবাড়ীতে যমুনা অয়েলের ডিপোতে ১০হাজার মেট্রিক টন ধারণ ক্ষমতার ৩টি স্টোরেজ ট্যাংক নির্মাণ কাজ শুরু হয় ২০১২ সালের জুলাই মাসে। ৪০ কোটি ১৪ লাখ টাকার এই প্রকল্পটি বাস্তবায়ন করেছে বিদ্যুৎ, জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের অধীনে জ্বালানী ও খনিজ সম্পদ বিভাগ। প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার কথা ছিল ২০১৪ সালের জুনে। কিন্তু জ্বালানি মন্ত্রণালয়, বিপিসিসহ সংশ্লিষ্ট সকল সংস্থার কর্মকর্তাদের সহযোগিতার কারণে এর আগেই অর্থাৎ ২০১৩ সালের নভেম্বরে মাসে প্রকল্পের মূল কাজ শেষ হয়। এ প্রকল্পের কাজ শেষ হওয়ার পর প্রায় দুই কোটি ৩২ লাখ টাকা সাশ্রয় হয়েছে। যা সরকারি কোষাগারে ফেরত দেওয়া হয়েছে।

দেশের অধিকাংশ সরকারি প্রকল্পে ধীরগতি, প্রকল্প ব্যয় বৃদ্ধির বিষয়টি যখন নিত্যনৈমিত্তিক বিষয় হয়ে দাড়িয়েছে। তখনই ব্যতিক্রম করে দেখালেন প্রকৌশলী ইসহাক চৌধুরী। তাঁর গ্রামের বাড়ি কক্সবাজার জেলার সদর উপজেলার পশ্চিম গুমাতলি গ্রামে।

মতামত...