,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

সোহেলকে হত্যার আসামীদের রিমান্ডে চাঞ্চল্যকর তথ্য

ctg merder (2)নিজস্ব প্রতিবেদক, বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকমঃ চট্টগ্রাম প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী সোহেলকে হত্যার জন্যই সহপাঠী সোহান পরিকল্পিতভাবেই হামলা চালিয়েছিলো বলে নিশ্চিত হয়েছে পুলিশ। প্রথম দফার ছুরিকাঘাতে আহত সোহেলকে হাসপাতালে নেয়ার সময় সোহান পুনরায় হামলা চালিয়ে মাথায় ছুরিকাঘাত করে তার মৃত্যু নিশ্চিত করে।

গ্রেফতারকৃত ৫ জনের রিমান্ড জিজ্ঞাসাবাদে পুলিশ চাঞ্চল্যকর এসব তথ্য পেয়েছে। এদিকে হত্যাকাণ্ডের সাথে জড়িত অন্তত ১৬ জনকে আজীবনের জন্য বহিষ্কার করতে যাচ্ছে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

ঘটনাস্থল থেকে গ্রেফতারকৃত ৫ জনকে নিজেদের হেফাজতে রেখে টানা তিনদিন জিজ্ঞাসাবাদ করেছে পুলিশ। এ  জিজ্ঞাসাবাদে বের হয়ে এসেছে হত্যাকাণ্ডের পুরো রহস্য। সোহেলকে হত্যার জন্যই চালানো হয়েছিলো এ হামলা।

কারণ প্রথম দফার হামলায় সোহেল আহত হলেও তা মারাত্মক ছিলো না। কিন্তু পরিকল্পনা অনুযায়ী তার মৃত্যু নিশ্চিত করতে হাসপাতালে নেয়ার পথে সিএনজি অটোরিক্সায় দ্বিতীয় দফা হামলা চালায় সোহান ও তার অনুসারীরা।

প্রাণনাশের আশংকায় সোহেলের পক্ষ থেকে আগেই থানায় জিডি হয়েছিলো।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের অন্তদ্বন্ধে একাধিক প্রাণহানির ঘটনা ঘটলেও বেসরকারি কোনো বিশ্ববিদ্যালয়ে এটাই প্রথম। তাই সি সি টিভি ক্যামেরায় শনাক্ত হওয়া হামলাকারীদের সবাইকে আজীবনের জন্য বহিষ্কারের সিদ্ধান্ত নিয়েছে প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ।

উল্লেখ্য, বিদায় অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি করার বিরোধকে কেন্দ্র করে গত ২৯ মার্চ দুপুরে প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের ক্যাম্পাসে ছাত্রলীগের এক গ্রুপের হামলায় নিহত হয় সোহেল নামে অপর এক ছাত্রলীগ নেতা।

মতামত...