,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

হযরত আহমদ উল্লাহ মাইজভাণ্ডারী (কঃ)’র ১১১তম ওরশ শরীফ শুরু আজ

এম বেলাল উদ্দিন, মাইজভান্ডার থেকে ফিরে, ২০ বিডিনিউজ রিভিউজ.কম::  পাক ভারত উপমহাদেশের প্রখ্যাত অলি-এ-কামেল, মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফের আধ্যাÍ শরাফতের প্রতিষ্ঠাতা এবং মাইজভাণ্ডারী তরিকার প্রবর্তক গাউসুল আজম হযরত মওলানা শাহসুফি সৈয়দ আহমদ উল¬াহ মাইজভাণ্ডারী (ক.)-এর ১১১-তম বার্ষিক ওরশ মোবারকের প্রধান দিবস (১০ মাঘ) আগামীকাল সোমবার মাইজভাণ্ডার দরবার শরীফে অনুষ্ঠিত হবে। শতবৎসরের ঐতিহ্যের ধারাবাহিকতায় প্রতিবছর এই মহান অলীর ওফাত (তিরোধান) দিবসের স্মরণে ১০ মাঘ, ২৩ জানুয়ারি, বংলাদেশের প্রত্যন্ত অঞ্চল ছাড়াও ভারত, পাকিস্তান, নেপাল, বার্মা, ইরাক, সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ বিশ্বের বহু দেশ হতে আগত লক্ষ লক্ষ ভক্ত অনুরক্ত আশেকের সমাগমে মহা সমারোহে অনুষ্ঠিত হয়ে আসছে। শনিবার থেকে হাজার হাজার আশেক ভক্তগন দলে দলে মাইজঁভান্ডার দরবার শরীফে আসতে শুরু করেছে। গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারীর অনুষ্ঠান ও প্রতিষ্ঠানাদি পরিচালনা ও নিয়ন্ত্রণের জন্য অছি-এ-গাউসুল আজম মাওলানা শাহসুফী সৈয়দ দেলাওর হোসাইন মাইজভাণ্ডারী কর্তৃক মনোনীত দরবার এ গাউসুল আযম মাইজভাণ্ডারী পরিচালনায় দায়িত্বে নিয়োজিত মোন্তাজেম, সাজ্জাদানশীন ও জিম্মাদার আওলাদ আলহাজ্ব শাহসুফি ডা. সৈয়দ দিদারুল হক মাইজভাণ্ডারীর ব্যবস্থাপনায় ওরশ আয়োজনের সকল ব্যবস্থা সুস¤পন্ন করা হয়েছে। গাউছিয়া আহমদিয়া মঞ্জিলের নায়েব মোন্তাজেম শাহজাদা সৈয়দ হোসেইন রাইফ নুরুল ইসলাম রুবাব জানান, গাউছুল আজম মাইজভাণ্ডারীর ১১১তম ওরশে আগত দেশ বিদেশের আশেক-ভক্ত, জায়েরীনদের জন্য থাকা-খাওয়া, স্যানিটেশন, প্রাথমিক চিকিৎসা, পার্কিং, নিরাপত্তা, নির্বিঘেœ চলাচলের জন্য লাইটিং এবং নিরবচ্ছিন্ন বিদ্যুৎ সরবরাহসহ সব ধরণের প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা স্থানীয় প্রশাসন এবং আইন শৃঙ্খলা বাহিনীর সহায়তায় ইতোমধ্যেই নেয়া হয়েছে। রবিবার সকাল ১০ টায় কোরআনখানি, খতমে গাউছিয়া আদায়ের মাধ্যমে পবিত্র ওরশ শরীফের কর্মসূচি আনুষ্ঠানিকভাবে সূচনা করা হবে। বিকাল ৩টায় রওজা-এ-পাকে গিলাফ চড়ানো ও গোসল শরীফ অনুষ্ঠানের কর্মসূচি গ্রহণ করা হয়েছে। ২৩ জানুয়ারি শাহী ময়দানে ওয়াক্তিয়া নামাজ আদায় শেষে বা’দ এশা বয়ানে শানে গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারী মাহফিলে ওলামায়ে কেরামগণ শানে বেলায়ত ও গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারী প্রবর্তিত
মাইজভাণ্ডারী তরিকা বিষয়ে বক্তব্য উপস্থাপন করবেন। মাহফিল শেষে রাত ১১টায় হযরতের দোয়ার মেহরাবে অছি-এ-গাউসুলআজম মাইজভাণ্ডারীর নির্দেশিত পন্থায় মিলাদুন্নবী ও তাওয়ালে¬াদে গাউছিয়া শেষে আখেরি মুনাজাতের মাধ্যমে ওরশ শরীফের কার্যক্রম সমাপ্ত হবে। গাউসুল আযম মাইজভাণ্ডারীর আদর্শবাহী সংগঠন আঞ্জুমানে মোত্তাবেয়ীনে গাউছে মাইজভাণ্ডারী’র কেন্দ্রীয় নির্বাহী পরিষদের সভাপতি আলহাজ শাহসুফি ডাঃ সৈয়দ দিদারুল হক মাইজভাণ্ডারী ওরশ শরীফে
সার্বক্ষণিক শান্তি-শৃঙ্খলা বজায় রাখা, আশেক ভক্তগণের যাতায়াত ও ইবাদতবন্দেগী, হাদিয়া চলাচল নির্বিঘœ রাখার জন্য সংশি¬ষ্ট সকলের প্রতি বিনীত অনুরোধ জানান। ওয়াক্তিয়া নামাযের সময়ে এবং বৃহ¯পতিবার বা’দ এশা বয়ানে শানে মোস্তফা (দ.) ও গাউসুল আজম মাইজভাণ্ডারী মাহফিল, মিলাদ ও মুনাজাত চলাকালীন সময়ে দরবার শরীফ এলাকায় সকল ধরনের বাদ্য-বাজনা, মাইক্রোফোন, অডিও ভিডিও ফিল্ম প্রদর্শন থেকে সকলকে বিরত থাকার জন্য ওরশ শরীফ সুপারভিশন কমিটির পক্ষ থেকে সংশি¬ষ্ট সকলকে অনুরোধ জানান। রাত এগারটায় অনুষ্ঠিতব্য মিলাদ শেষে ওরশ মোবারকে শরীক হওয়া সকল জায়েরীন, দেশ-জাতিসহ সমগ্র বিশ্ব মানবতার কল্যান কামনায় আখেরি মুনাজাতে শরিক হওয়ার জন্য জাতি-ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলের প্রতি আহবান জানান তিনি।

মতামত...