,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

৮ দিনে ৭৪ লাখ জরিমানা ১৮০৯ মামলা

ঢাকা,০৮ptডিসেম্বর (বিডি নিউজ রিভিউজ ডটকম):: ছয়টি পণ্যে পাটজাত মোড়কের বাধ্যতামূলক ব্যবহার নিশ্চিত করতে সারাদেশে চলছে সাঁড়াশি অভিযান।

পাট ও বস্ত্র মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজমের নেতৃত্বে ৩০ নভেম্বর থেকে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে রাজধানী ঢাকাসহ সারাদেশে এই অভিযান শুরু হয়।

অভিযানে গত আট দিনে দুজনকে কারাদণ্ড ও অর্থদণ্ড দেওয়া হয়েছে। আইন অমান্য করায় ভ্রাম্যমান আদালত আট দিনে ১ হাজার ৮০৯টি মামলা দায়ের করে। জরিমানা আদায় করা হয়েছে ৭৪ লাখ ৫৫ হাজার ৭শ’ টাকা। পাট ও বস্ত্র মন্ত্রণালয় সূত্র এসব তথ্য জানায়।

মঙ্গলবার সকাল থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত রাজধানীসহ সারাদেশে অভিযান চালিয়ে ২৩টি মামলা দায়ের করা হয় এবং এতে আইন অমান্য করায় প্রায় ৪৬ হাজার ২শত টাকা জরিমানা আদায় করা হয়েছে।

এদিন রাজধানীর কলাপট্টি, যাত্রাবাড়ী, বালুরমাঠ, পোস্তাগোলা বাজারের চালের আড়তগুলোতে ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে অভিযান পরিচালনা করা হয়। ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশ (ডিএমপি) সহায়তায় এসব অভিযান পরিচালনা করেন ঢাকা জেলার নিবার্হী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ মমিন উদ্দিন। আইন অমান্য করায় এ সময় স্থানীয় একটি প্রতিষ্ঠানকে পাঁচ হাজার টাকা জরিমানা আদায় করা হয়।

রাজধানীর ভ্রাম্যমান আদালতের কার্যক্রম পরিদর্শন করেন বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম। এ সময় পাট অধিদপ্তরের মহাপরিচালক  মো. মুয়াজ্জেম হোসাইন উপস্থিত ছিলেন।

এসময় বস্ত্র ও পাট প্রতিমন্ত্রী মির্জা আজম বলেন, ‘ছয়টি পণ্যে শতভাগ পাটের বস্তার ব্যবহার নিশ্চিত না হওয়া পর্যন্ত এ অভিযান চলবে।

তিনি বলেন, অভিযানের কারণে সর্বস্তরে পাটের ব্যবহার ও আইন পালনে ব্যাপক সাড়া পাওয়া গেছে। ছয়টি পণ্যে শতভাগ পাটের বস্তার ব্যবহার নিশ্চিত হওয়া এখন সময়ের ব্যবধান মাত্র, যোগ করেন প্রতিমন্ত্রী।

মির্জা আজম ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে বলেন, ‘আইন বাস্তবায়নের সময় ছিল ২০১৪ সাল । কিন্তু সব পক্ষের সঙ্গে আলোচনা করে ২০১৫ সালের ৩০ নভেম্বর থেকে এ আইন বাস্তবায়নের কার্যক্রম শুরু হয়েছে

মতামত...