,

সর্বশেষ
bnr ad 250x70 1

ভারতে পাকিস্তানি কবুতর গ্রেপ্তার

pak-pigionনিজস্ব প্রতিবেদক,বিডিনিউজ রিভিউজঃ ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে হুমকির চিঠিসহ একটি পাকিস্তানি কবুতরকে কারা হেফাযতে নেয়া হয়েছে। ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনী (বিএসএফ) পাঞ্জাব প্রদেশের উত্তরাঞ্চলের পাঠানকোট এলাকা থেকে কবুতরটিকে আটক করে। গত জানুয়ারিতে পাকিস্তানি জঙ্গিরা এখানকার বিমানঘাঁটিতে প্রাণঘাতী হামলা চালিয়েছিল।

উর্দু ভাষায় লেখা ওই চিঠিতে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে হুমকি দেয়া হয়েছে বলে দাবি করেছে বিএসএফ। চিঠিটি উদ্ধার করে স্থানীয় পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।

পাঠানকোট পুলিশ পরিদর্শক রাকেশ কুমার বার্তা সংস্থা এএফপিকে টেলিফোনে জানান, গতকাল রবিবার সন্ধ্যায় কবুতরটিকে কারা হেফাজতে নেয়া হয়েছে। বিএসএফ কবুতরটিকে একটি চিঠিসহ আটক করেছেন। উর্দু ভাষায় চিঠিতে লেখা ছিল, ‘মোদি, আমাদের ১৯৭১ সালের জনগণ মনে করবেন না। এখন আমরা প্রতিটা শিশুই ভারতের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে প্রস্তুত।’

রাকেশ কুমার আরও জানান, চিঠিতে জঙ্গি গোষ্ঠী লস্কর-ই-তাইবা(এলইটি)’র স্বাক্ষর ছিল। খুব গুরুত্বসহকারে বিষয়টি তদন্ত করা হচ্ছে।

দুই প্রতিবেশী দেশের মধ্যে কবুতর পাঠানোর ঘটনা এটিই প্রথম নয়। এই ঘটনার দুই দিন আগে পাঞ্জাবের গুরুদাসপুর থেকে দুটি বেলুন উদ্ধার করে ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনী। সেই বেলুনেও মোদিকে উদ্দেশ্য করে একই ধরনের বার্তা লেখা ছিল।

পাকিস্তানের পক্ষে গুপ্তচরবৃত্তির সন্দেহে গত বছর ভারতীয় পুলিশ একটি কবুতরকে আটক করে। কবুতরটির সঙ্গে কোনো গোপন ক্যামেরা, ট্রান্সমিটার বা চিপ আছে কিনা তা পরীক্ষার জন্য কবুতরটির এক্সরে করে ভারতের পুলিশ।

২০১৩ সালে ভারতীয় নিরাপত্তা বাহিনী ছোট্ট ক্যামেরাসহ একটি মৃত বাজপাখির খুঁজে পায়। ২০১০ সালে গুপ্তচর সন্দেহে অন্য একটি কবুতর আটক করে ভারত।

গত ১৮ সেপ্টেম্বর কাশ্মিরের উরি সেনাঘাঁটিতে জঙ্গি হামলার পর ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে সম্পর্কের মারাত্মক অবনতি ঘটে। এরপর থেকে দুই দেশের মধ্যে সীমান্তবর্তী এলাকায় প্রায়ই হামলা পাল্টা হামলার ঘটনা ঘটছে।

জিও নিউজ’র প্রতিবেদন।

মতামত...